ঈদে দরিদ্র ও অসহায় মানুষদের পাশে দাঁড়াতে বিত্তবানদের প্রতি সাকিবের আহ্বান

স্পোর্টস ডেস্ক : বাংলাদেশসহ বিশ্বের বহু মুসলিম দেশে আগামীকাল শনিবার মুসলমানদের বড় ধর্মীয় উৎসব পবিত্র ঈদুল আজহা। আর এই ঈদের সময় দরিদ্র ও অসহায় মানুষদের পাশে দাঁড়াতে বিত্তবানদের প্রতি আহ্বান জানালেন ক্রিকেটের সেরা অলরাউন্ডার সাকিব আল হাসান।

শুক্রবার সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে সাকিব আল হাসান লিখেছেন, ‘মহান আল্লাহর নির্দেশে ত্যাগের অঙ্গীকার পালনের দিনটিই হলো ঈদ-উল-আযহার দিন। আল্লাহ আমাদের সকলকে সমান ভালবাসা ও শক্তি দান করুন। আশেপাশের দরিদ্র ও অসহায় মানুষদের পাশে দাঁড়িয়ে আসুন ঈদের আনন্দ ছড়িয়ে দেই চারিদিকে।

সাকিব এখন তার পরিবারের সঙ্গে সময় কাটাতে যুক্তরাষ্ট্রে রয়েছেন। আগামী মাস থেকে তিনি ইংল্যান্ডে অনুশীলন শুরু করতে পারেন। কারণ, সবকিছু ঠিক থাকলে আগামী ২৯ আগস্ট নিষেধাজ্ঞা থেকে মুক্ত হবেন তিনি।

জুয়াড়িদের কাছে প্রস্তাব পাওয়ার কারণে সাকিবকে সব ধরনের ক্রিকেট থেকে দুই বছরের জন্য নিষিদ্ধ করে ইন্টারন্যাশনাল ক্রিকেট কাউন্সিল (আইসিসি)। এর মধ্যে এক বছরের নিষেধাজ্ঞা হলো স্থগিত নিষেধাজ্ঞা।- ফেসবুক থেকে

ভারতের পঞ্জাবে বিষাক্ত মদ পানে ২১ জন মারা গেছে

আন্তর্জাতিক ডেস্ক : ভারতের অন্ধ্রপ্রদেশে অ্যালকোহল মেশানো স্যানিটাইজার পান করে ৯ জনের মৃত্যুর পর এবার পঞ্জাবে বিষাক্ত মদ পানে ২১ জনের মৃত্যু খবর পাওয়া গেছে।

বুধবার রাতে প্রাথমিক ভাবে অমৃতসরে পাঁচজনের মৃত্যুর খবর এসেছিল।কিন্তু এর পর গুরুদাসপুর এবং তরণ তারণ জেলা থেকেও বিষাক্ত মদ পান করে মৃত্যুর খবর আসতে শুরু করে।

শুক্রবার পর্যন্ত পঞ্জাবের তিনটি জেলায় বিষাক্ত মদে মৃতের সংখ্যা ২১ ছুঁয়ে ফেলেছে।হাসপাতালে চিকিৎসাধীন কয়েকজনের অবস্থা এখনও গুরুতর। এই পরিস্থিতিতে শুক্রবার এ ঘটনা তদন্তের নির্দেশ দিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী অমরেন্দ্র সিংহ।খবর আনন্দবাজার পত্রিবার।

অমরেন্দ্র সিংহ শুক্রবার এক টুইটবার্তায় বলেন, বিষাক্ত মদে মৃত্যুর ঘটনায় ম্যাজিস্ট্রেট পর্যায়ের তদন্তের নির্দেশ দিয়েছি। জালন্ধর ডিভিশনের কমিশনার এ তদন্ত পরিচালনা করবেন।

সংশ্লিষ্ট জেলাগুলির পুলিশ সুপার এবং অন্য প্রশাসনিক কর্মকর্তরা তাকে সহায়তা করবেন।দোষীদের কোনও অবস্থাতেই রেহাই মিলবে না বলেও জানান তিনি।

পুলিশ জানায়, লকডাউনের কারণে মদের দোকান বন্ধ থাকায় ঘরে বানানো চোলাই মদ খেয়েই এই মৃত্যুর ঘটনা ঘটেছে।

২ হাজার কোটি টাকা পাচার- আ’লীগের দুই নেতা গ্রেফতার

ডেস্ক রিপাের্ট : দুই হাজার কোটি টাকা পাচার মামলায় ফরিদপুর শহর আওয়ামী লীগের সভাপতি নাজমুল হাসান খন্দকার লেভী ও জেলা শ্রমিক লীগের অর্থ সম্পাদক বিল্লাল হোসেনকে গ্রেফতার করেছে আইন শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী। শুক্রবার দুপুরে তাদেরকে গ্রেফতার করা হয়।

এর আগে গত ৭ জুন আটক করা হয়েছিল শহর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সাজ্জাদ হোসেন বরকত ও তার ভাই ইমতিয়াজ হাসান রুবেলকে। বরকত ও রুবেলকে আটকের পর তাদের বিরুদ্ধে দুই হাজার কোটি টাকা অর্থ পাচারের অভিযোগে সিআইডি কাফরুল থানায় একটি মামলা দায়ের করে। সেই মামলায় স্বীকারোক্তিতে নাজমুল হাসান লেভী ও বিল্লাল হোসেন সম্পৃক্ত রয়েছে বলে জানা গেছে।

ফরিদপুরের পুলিশ সুপার মো. আলিমুজ্জামান বিপিএম জানান, অর্থ পাচার মামলার মূল আসামী বরকত-রুবেলের জবানবন্দিতে যাদের নাম এসেছে তাদের আটক করা হচ্ছে। এরই অংশ হিসাবে দুপুরে নাজমুল হাসান লেভী ও বিল্লাল হোসেনকে তাদের বাড়ি থেকে আটক করা হয়। আটকের পর তাদের আদালতের মাধ্যমে জেল হাজতে পাঠানো হয়েছে।

নাপোলির দাবি মানলো না উয়েফা, বার্সেলোনার মাঠেই খেলতে হবে

স্পোর্টস ডেস্ক :স্পেনে নতুন করে করোনাভাইরাস সংক্রমণের কারণে বার্সেলোনায় চ্যাম্পিয়ন্স লিগের ফিরতে ম্যাচ খেলতে আপত্তি জানিয়েছিল ইতালিয়ান ক্লাব নাপোলি। ম্যাচটি পর্তুগাল বা জার্মানিতে সরিয়ে নেওয়ার দাবি জানিয়েছিল তারা। তবে তাদের এই চাওয়া পূরণ হচ্ছে না। শেষ ষোলোর লড়াইয়ে লিওনেল মেসিদের মাঠেই যেতে হবে তাদের।

ইউরোপ জুড়ে করোনার থাবা স্তিমিত হওয়ার পর স্বস্তিতে ছিলেন সবাই। কিন্তু সম্প্রতি ফের স্পেনে দেখা দিয়েছে সংক্রমণ। নতুন করে হতে থাকা এই সংক্রমণের ৬০ শতাংশই স্পেনের উত্তরপূর্ব অঞ্চলের কাতালুনিয়ায়, যেখানকার বড় শহর বার্সেলোনা। এই অবস্থায় ৮ অগাস্ট ফিরতে লেগের ম্যাচ খেলতে শহরটিতে খেলতে যেতে তীব্র আপত্তি জানিয়েছিলেন নাপোলির সভাপতি আউরেলিও দে লাউরেন্তিস।

বার্সেলোনার বদলে ম্যাচটি কোথায় আয়োজন করা যেতে পারে সেই পরামর্শও দিয়েছিলেন তিনি। কিন্তু তার এমন অভিমত গ্রহণ করেনি ইউরোপিয়ান ফুটবলের নিয়ন্ত্রক সংস্থা। এক বিবৃতিতে ম্যাচটি বার্সেলোনার মাঠেই আয়োজন করার কথা নিশ্চিত করেছে তারা। বলেছে, আমাদের আগের পরিকল্পনা অনুযায়ী ম্যাচটি বার্সেলোনায় অনুষ্ঠিত হবে। আমরা সার্বিক পরিস্থিতি খতিয়ে দেখছি, স্থানীয় প্রতিনিধিদের সঙ্গেও যোগাযোগ রাখছি।

উয়েফা জানায়, ম্যাচ আয়োজন নিয়ে স্প্যানিশ ফুটবল ফেডারেশনকেও অবহিত করেছে তারা।

করোনাভাইরাসের কারণে কোয়ার্টার ফাইনাল থেকে বাকি সব ম্যাচ পর্তুগালের লিসবনে আয়োজনের সিদ্ধান্ত আগেই নিয়েছে উয়েফা। এছাড়া ইউরোপা লিগের সব ম্যাচ হবে জার্মানিতে। – ডেইলি স্টার

মুসলিমদের দমনে কঠোর পুলিশি পাহারা অযোধ্যায়

আন্তর্জাতিক ডেস্ক : ভারতের অযোধ্যার বিতর্কিত ভূমিতে আগামী সপ্তাহ থেকে মন্দির নির্মাণের কাজ শুরু হতে যাচ্ছে। এ সময় অঞ্চলটিতে যে কোনো বিশৃঙ্খলা এড়ানো ও স্থানীয় মুসলিমদের দমনে আশেপাশের সড়কগুলোতে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

গত কয়েক দশকের প্রতীক্ষার অবসান ঘটিয়ে গত বছর নভেম্বরে বাবরি মসজিদ-রাম জন্মভূমি নিয়ে করা ঐতিহাসিক অযোধ্যা মামলার রায় দেয় ভারতের সুপ্রিম কোর্ট।

রায়ে বিতর্কিত পৌনে ৩ একর ভূমি মন্দির নির্মাণের জন্য দেওয়া হয়, তবে মন্দির হবে একটি ট্রাস্টের অধীনে। আর মসজিদের জন্য কাছাকাছি অন্য স্থানে ৫ একর জমি দেবে সরকার।

সুপ্রিম কোর্টের রায়ের পর গত ফেব্রুয়ারিতে ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী মন্দির নির্মাণের জন্য ট্রাস্ট গঠনের ঘোষণা দেন।

আগামী ৫ অগাস্ট মন্দিরের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপনের জন্য মোদীকে আমন্ত্রণ জানানো হয়েছে বলে জানায় ব্রিটিশ বার্তা সংস্থা রয়টার্স।

যদিও দিল্লিতে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয় থেকে বলা হয়েছে, মোদী সেখানে যাবেন কিনা তা চলমান করোনা ভাইরাস মহামারি পরিস্থিতি এবং সেখানকার নিরাপত্তা অবস্থার উপর নির্ভর করছে।

মোদী বলেন, উপস্থিত সবাইকে অবশই সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে যার যার কাজ করতে হবে।

উল্লেখ্য, ষোড়শ শতকে নির্মিত বাবরি মসজিদের ভূমি নিয়ে হিন্দু ও মুসলমানদের মধ্যে বিরোধ দীর্ঘ কয়েক যুগের। হিন্দুদের বিশ্বাস, রামচন্দ্রের জন্মভূমি অযোধ্যায় বাবরি মসজিদের জায়গায় একটি রাম মন্দির ছিল।

১৯৯২ সালে উগ্র হিন্দুত্ববাদীরা বাবরি মসজিদ গুঁড়িয়ে দেয়। মসজিদটি ভাঙা নিয়ে ওই বছর হিন্দু-মুসলমান দাঙ্গায় ভারতজুড়ে দুই হাজারের বেশি মানুষ নিহত হয়।

নভেম্বরের রায়ের পর আবারও একই ধরণের দাঙ্গা ছড়িয়ে পড়ার আশঙ্কা করা হয়েছিল। তবে সে রকম কিছু ঘটেনি।

অযোধ্যায় মুসলমানদের সুন্নি ওয়াকফ বোর্ডের সদস্য সাকিব নূর বলেন, আমরা সেখানে হিন্দু মন্দির নির্মাণের রায় মেনে নিয়েছি। তাই বিশৃঙ্খলা সৃষ্টির কোনো কারণ নেই।

উভয় পক্ষ শান্তিপূর্ণ অবস্থা বজায় রাখার কথা বললেও অযোধ্যা কর্তৃপক্ষ কোনো ঝুঁকি নিতে নারাজ। এরই মধ্যে মন্দির নির্মাণের জায়গার আশেপাশের সড়কে পুলিশি পাহারার ব্যবস্থা করা হয়েছে। আগামী সপ্তাহে বড় ধরণের জনসমাগম এড়াতে সড়কগুলোতে ব্যারিকেডও বসানো হবে।

ভারত এবং ভারতের বাইরের অনেক হিন্দু মন্দির নির্মাণ তহবিলে অর্থ পাঠিয়েছেন। ২০২২ সাল নাগাদ মন্দির নির্মাণের কাজ শেষ হবে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

ইংল্যান্ড সফরে পাকিস্তান, বিনিময়ে ২২ সালে ইংলিশ দলকে চায় পিসিবি

স্পোর্টস ডেস্ক : গত মাসের ২৮ তারিখে ৩৫ সদস্যের পাকিস্তান ক্রিকেট দল ইংল্যান্ডে পৌঁছেছে টেস্ট সিরিজ খেলার জন্য। স্কোয়াডের ১০ জনের করোনা পজিটিভ রিপোর্ট আসার পরও এই সফর স্থগিত করেনি তারা।

সব কিছু ঠিক থাকলে আগামী ৫ আগস্ট ওল্ড ট্র্যাফোর্ডে শুরু হবে ইংল্যান্ড-পাকিস্তান তিন ম্যাচের টেস্ট সিরিজ। তবে সিরিজ শুরুর আগেই ইংল্যান্ডের কাছে অন্যরকম এক আবদার করল পাকিস্তান।

সেটি হলো, পাকিস্তান যেভাবে এমন করোনা পরিস্থিতিতেও ইংল্যান্ড সফরে এসেছে, স্কোয়াডের ১০ সদস্য মহামারীতে আক্রান্ত হলেও পিছপা হয়নি। ঠিক তেমনি শত প্রতিকূল পরিস্থিতিতেও ২০২২ সালে ইংল্যান্ড দল যেন পাকিস্তানে আসে। ইংল্যান্ড ক্রিকেট বোর্ডকে পিসিবি বলেছে আমরা আশা করি ইসিবিও ২০২২ সালে সঠিক কাজটি করবে।

এক অডিওবার্তায় পিসিবির প্রধান নির্বাহী ওয়াসিম খান বৃহস্পতিবার জানান, ২০২২ সালে পাকিস্তানের ইংল্যান্ড সফরের বিষয়টা এখনও পর্যন্ত ভালো ভিত্তির ওপর দাঁড়িয়ে আছে। ওই সিরিজের ফলে পাকিস্তানের অবশ্যই উপকার হবে। কিন্তু এই মুহূর্তেই এ নিয়ে ইংল্যান্ডের ওপর আমরা কোনো শর্ত আরোপ করতে চাই না । তবে আমরা আশাবাদী ইসিবি সঠিক সিদ্ধান্ত নেবে। সেই সফর সফল করবে।

প্রসঙ্গত, ২০০৫ সালের আর পাকিস্তান সফরে যায়নি ইংল্যান্ড। আইসিসির ফিউচার ট্যুর প্ল্যান (এফটিপি) অনুসারে ২০২২ সালে পাকিস্তানে সফরের কথা রয়েছে ইংল্যান্ডের। ইংল্যান্ড রাজি থাকলে ১৭ বছর পর পাকিস্তানের মাটিতে পা রাখবে ইংলিশরা। – দ্য ডন

শোকের মাসে বঙ্গবন্ধুর নাম ভাঙিয়ে চাঁদাবাজি করলে ছাড় দেওয়া হবে না : ওবায়দুল কাদের

নিজস্ব প্রতিবেদক : আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন শোকের মাসে বঙ্গবন্ধুর নাম ভাঙিয়ে কেউ চাঁদাবাজি বা অনিয়ম করলে কাউকে ছাড় দেওয়া হবে না।

তিনি বলেন, শোকের মাস আগস্ট শুরু হচ্ছে। এ শোকের মাসে বঙ্গবন্ধুর নাম ভাঙিয়ে চাঁদাবাজি করা যাবে না। কেউ চাঁদাবাজি বা অনিয়ম করলে কাউকে ছাড় দেওয়া হবে না।

শুক্রবার (৩১ জুলাই) রংপুর সড়ক জোন, বিআরটিসি ও বিআরটিএ’র কর্মকর্তাদের সঙ্গে শেষ মুহূর্তের ঈদ প্রস্ততি বিষয়ক এক মতবিনিময় সভায় ওবায়দুল কাদের এ হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করেন। সেতুমন্ত্রী সংসদ ভবন এলাকায় তার সরকারি বাসভবন থেকে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে মতবিনিময় সভায় যুক্ত হন।

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বলেন, করোনা ভাইরাস সংক্রমণ রোধে ঈদে ঘরমুখো যাত্রীদের শতভাগ মাস্ক পরিধান ও স্বাস্থ্যবিধি মানাসহ সর্বোচ্চ মাত্রায় সচেতনতা অবলম্বনের অনুরোধ জানাচ্ছি।

ইসরায়েলি আগ্রাসনকে চ্যালেঞ্জ জানাবে ইইউ

আন্তর্জাতিক ডেস্ক : মধ্যপ্রাচ্যের নির্যাতিত রাষ্ট্র ফিলিস্তিনের পশ্চিম তীর ও জর্দান উপত্যকার অংশ বিশেষ দখল প্রসঙ্গে ইহুদি রাষ্ট্র ইসরায়েল যে পরিকল্পনা হাতে নিয়েছে তা বিনা চ্যালেঞ্জে ছেড়ে দেওয়া ঠিক হবে না। সম্প্রতি এমনটাই দাবি করেছেন ইউরোপীয় ইউনিয়নের (ইইউ) একদল সংসদ সদস্য।

তারা বলেছেন, দখলদার রাষ্ট্র ইসরায়েল এই অবৈধ পরিকল্পনা বাস্তবায়ন করলে ফিলিস্তিনিরা তাদের অধিকার থেকে বঞ্চিত হবে।

বুধবার (২৯ জুলাই) এক যূথ বিবৃতিতে যুক্তরাজ্য, ফ্রান্স, আয়ারল্যান্ড, বেলজিয়াম এবং সুইডেনের সংসদ সদস্যরা এসব কথা বলেন।

বিবৃতিতে তারা অঙ্গীকার ব্যক্ত করে বলেন, ইসরায়েলের ভূমি জবর দখলের পরিকল্পনা বাধার মুখে পড়বে। অধিকৃত ফিলিস্তিনের পশ্চিম তীরের অংশ বিশেষকে ইসরায়েল সরকারের সংযুক্তিকরণ পরিকল্পনায় আমরা বিবৃতিতে স্বাক্ষরকারী ব্যক্তিরা গভীরভাবে উদ্বিগ্ন।

একতরফাভাবে পশ্চিম তীরের যে কোনো অংশ সংযুক্ত করা আন্তর্জাতিক আইনের চরম লঙ্ঘন হবে। সংযুক্তকরণ অবশ্যই বিনা চ্যালেঞ্জে পার পাবে না।

ইসরায়েলের যুদ্ধবাজ প্রধানমন্ত্রী বেঞ্জামিন নেতানিয়াহু গত কয়েক মাস আগে ঘোষণা করেছিলেন, অধিকৃত ফিলিস্তিনের পশ্চিম তীর ও কৌশলগত জর্ডান উপত্যকার শতকরা ৩০ ভাগ এলাকা তেল আবিব দখল করে নেবে। তবে এ নিয়ে ইসরায়েলের মন্ত্রিসভা ব্যাপকভাবে দ্বিধাবিভক্ত হয়ে পড়েছে।

এছাড়া ফিলিস্তিনের পক্ষ থেকেও শক্ত প্রতিরোধমূলক অবস্থান গ্রহণ করা হয়েছে।

কােরবানীর পশুর হাট – ক্রেতা আছে গরু নেই

ডেস্ক রিপাের্ট : ক্রেতদের তীব্র চাপ থাকলেও হাটগুলোতে গরুর সংখ্যা ছিল খুবই কম। যে কয়েকটি গরু ছিল তা নিয়ে রীতিমতো ক্রেতাদের মাঝে ছিল কাড়াকাড়ি। দাম কোনো ব্যাপার ছিল না গরু পাওয়াটাই ছিল সৌভাগ্যের ব্যাপার। তাই কে গরুর রশি ধরতে পারেন তাই নিয়ে ছিল প্রতিযোগিতা।

রাজধানীর আফতাবনগর, মেরাদিয়া, খিলগাঁও রেলগেট, জুরাইন ও গাবতলীসহ বেশ কয়েকটি পশুর হাটে এই চিত্র দেখা গেছে।

তবে এর আগে গতকাল সারা দিন হাটগুলোতে ছিল ভিন্ন চিত্র। অনেক ব্যাপারি মহামারি করোনার কারনে বিক্রি নাও হতে পারে এই আতঙ্কে কম দামে গরু ছেড়ে দিয়েছেন। এমনই একজন হলেন মো. কালাম হোসেন। তিনি ১২টি গরু নিয়ে এসেছেন গাবতলীর হাটে। জানালেন সব ব্যাপারি ও খামারির চেহারায় গরু বিক্রি না হওয়ার চাপা আতঙ্ক। আমিও ভয় পেয়ে গেলাম। মহামারি করোনার কারণে যদি বিক্রি না হয় তা হলে ফেরত নিতে আবার টাকা লাগবে। এতগুলো গরুকে খাওয়াতেও অনেক খরচ। তাই কোনোটিতে সামান্য লাভ কোনোটিতে লাভ না কসে লসে ছেড়ে দিয়েছি।

রাজধানীর অপর হাট আফতাব নগর থেকে গতকাল দুপুরে গরু কিনেছেন মো. মাকসুদুর রহমান গাজী ও মো. মোনির হোসেন। তারা জানালেন, ‘আগে আগে গরু কিনলাম। কোনো ঝুঁকি নিলাম না। চাঁদের রাতে অনেক সময় দাম পড়ে যায়। ব্যাপারিদের দুঃখ বেড়ে যায়। এটা ভালো লাগে না। আবার গরুর টান পড়ে গেলে আরেক যন্ত্রণা। তারা বললেন, যে গরু ৭৩ হাজার টাকায় কিনেছি সেই মানের গরু দেখলাম কেউ ৮৫ কেউ ৬৫ হাজার টাকায় কিনেছেন। এবার হাটে দামের কোনো আগামাথা নেই।’

ব্যবসায়ী আনিসুজ্জান। থাকেন সিদ্ধেশ্বরীতে। পরিচিত একজন গতকাল বিকালে মোবাইলে জানালেন হাটে গরুর টান। দ্রুত তিনি জুরাইন হাটে গেলেন। একটি গরুও কিনে ফেললেন তার ভাই মো. আসাদুজ্জামান। বললেন, আলহামদুলিল্লা গরু পেয়েছি এতেই খুশি। দাম তো আল্লার রাস্তায় কোরবানি। তবে গত বছর এই মানের গরু ৭০ বা ৭৫ হাজার টাকার বেশি ছিল না। রাতে যারা কেনার নিয়ত করেছেন তারা হয়ত পাবেন না। তার ধারণা সকালের পর আবার গরু আসবে।’

এদিকে মেরুলের মো. আমিন। তিনি গতকাল রাতে আফতাবনগর হাট থেকে গরু কেনার নিয়ত করেছিলেন। কিন্তু কিনতে পারেননি। কয়েকটি হাটে গুরে জানালেন শুক্রবার কিনবেন। দাম একটু কমতে পারে। তিনি জানালেন, খিলগাঁও রেলগেট হাটে গিয়ে দেখা গেছে পুরো হাঁটই প্রায় খালি। বাঁশ ও খুঁটিগুলোতে কোনো গরু নেই। যে কয়টি গরু রয়েছে সেগুলোর দাম বাড়িয়ে দিয়েছেন বিক্রেতারা। আফতাবনগর হাটে মাঝারি সাইজের গরুর দামও চড়া। বড় বড় গরুগুলোর ক্রেতা সেভাবে দেখা যায়নি। মাঝারি ধরনের প্রায় সব গরুই শেষ। বেশ কয়েকজন ব্যবসায়ী বলেছেন গরু শেষ। তারা আরো গরু আনছেন।

এদিকে চট্টগ্রামেও একই অবস্থা ছিল বলে জানা গেছে। কোরবানির গরুর জন্য রাতে হাহাকার পড়ে গেছে। শেষ মুহূর্তে কোরবানির পশুর জন্য হন্য হয়ে ঘুরছে মানুষ। ছুটছেন একবাজার থেকে অন্য বাজারে। কোথাও কাঙ্খিত গরুর দেখা মিলছে না। যে অল্প সংখ্যক আছে তার দামও চড়া। বাজারে গরুর চেয়ে ক্রেতা বেশি ছিল নগরের প্রতিটি হাটে। নোয়খালী ও ফেনীতেও প্রায় গরু শূন্য ছিল হাট।

স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের বুলেটিন – দেশে এক দিনে করোনায় মৃত্যু ২৮, আক্রান্ত ২ হাজার ৭৭২ জন

নিজস্ব প্রতিবেদক : বাংলাদেশে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন ২৮ জন। এনিয়ে মোট মারা গেলেন ৩,১১১ জন। এছাড়া একই সময়ে আরও ২,৭৭২ জন করোনাভাইরাসে সংক্রমিত রোগী শনাক্ত হয়েছে। এ নিয়ে দেশে মোট শনাক্তের সংখ্যা দাঁড়াল ২,৩৭,৬৬১ জন।

আজ স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের করোনাভাইরাস সংক্রান্ত নিয়মিত হেলথ বুলেটিনে এ তথ্য জানানো হয়। অনলাইনে বুলেটিন উপস্থাপন করেন স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের অতিরিক্ত মহাপরিচালক (প্রশাসন) অধ্যাপক ডা. নাসিমা সুলতানা।

অনলাইন বুলেটিনে বলা হয়, গত ২৪ ঘণ্টায় ১২৬১৪ জনের নমুনা পরীক্ষা করা হয়।

গতকাল পর্যন্ত করোনাভাইরাস শনাক্তে নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছিল ১৪,১২৭টি। এরমধ্যে নতুন শনাক্ত হয়েছিলেন ২,৬৯৫ জন। মোট শনাক্ত হয়েছিলেন ২,৩৪,৮৮৯ জন। আর গতকাল আরও ৪৮ জন মারা যান। এ নিয়ে মৃতের সংখ্যা দাঁড়িয়েছিল ৩,০৮৩ জন। এছাড়া গতকাল সুস্থ হয়েছিলেন ২,৬৬৮ জন। এনিয়ে মোট সুস্থ হয়েছেন ১,৩২,৯৬০ জন।

বুলেটিন শেষে ডা. নাসিমা বলেন, সতর্ক থাকুন, সচেতন হোন। সঠিকভাবে মাস্ক পরুন এবং বাড়ির সকল সদস্যকে এ বিষয়ে উদ্বুদ্ধ করুন। সাবান পানি দিয়ে বার বার ২০ সেকেন্ড ধরে হাত ধোন। সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখুন। জনসমাবেশ এড়িয়ে চলুন। সবাই সচেতন হলে, সতর্ক হলে অবশ্যই করোনাকে প্রতিরোধ করা যাবে এবং এই প্রতিরোধে আপনারা সবাই সামিল হবেন।

দেশে নভেল করোনাভাইরাসে (কভিড-১৯) সংক্রমিত প্রথম রোগী শনাক্ত হয় গত ৮ মার্চ। আর ১৮ মার্চ করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে প্রথম একজনের মৃত্যু হয়।

৭৭