adv
২৫শে ফেব্রুয়ারি, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ | ১২ই ফাল্গুন, ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

জামায়াতকে নিয়ে আন্দোলন করলে সমস্যা কোথায়, ভিপি নুরের প্রশ্ন

নিজস্ব প্রতিবেদক: গণঅধিকার পরিষদের সভাপতি নুরুল হক নুর বলেছেন, ১৯৯৬ সালে আওয়ামী লীগ জামায়াতকে নিয়ে আন্দোলন করলে আজ আমাদের সমস্যা কোথায়? জামায়াতের মতো শক্তিকে বাইরে রাখা যাবে না। যারা বিভাজনের কথা বলছেন, তারা প্রকারান্তরে সরকারের এজেন্ডা বাস্তবায়ন করছেন।

রোববার সকালে সরকার পতনে একদফা দাবিতে অবরোধের সমর্থনে এক মিছিল শেষে সংক্ষিপ্ত সমাবেশে এসব কথা বলেন তিনি। সকাল সাড়ে ১১টায় পুরানা পল্টন আল রাজী কমপ্লেক্সের সামনে থেকে মিছিল বের করে গণঅধিকার পরিষদ। তাদের মিছিলটি পল্টন মোড়, নাইটিংগেল মোড় ঘুরে বিজয়নগর পানির ট্যাংকির মোড়ে গিয়ে এক সংক্ষিপ্ত সমাবেশের মধ্য দিয়ে শেষ হয়।

ঢাকা মহানগর ৩৯নং ওয়ার্ড বিএনপির সদস্য ইমতিয়াজ বুলবুলের ঘটনা উল্লেখ করে নুরুল হক নুর বলেন, অন্যায়ভাবে বিএনপি নেতা বুলবুলকে গ্রেপ্তার করে থানায় নিয়ে নির্যাতন করে মেরে ফেলেছে। মারার পর চুপিসারে দাফন সম্পন্ন করেছে।

এভাবে দেশে চলতে পারে না। দেশের অস্তিত্ব রক্ষায় সর্বদলীয় সংগ্রাম পরিষদ গঠন করে এই ফ্যাসিবাদ হঠাতে হবে। বিএনপি, জামায়াত, হেফাজত, বাম-ডান সকলকে এক হয়ে পাড়া-মহল্লায় ফ্যাসিবাদ বিরোধী গণঐক্য গঠন করতে হবে। ১৯৯৬ সালে আওয়ামী লীগ জামায়াতকে নিয়ে আন্দোলন করলে আজ আমাদের সমস্যা কোথায়? জামায়াতের মতো শক্তিকে বাইরে রাখা যাবে না। যারা বিভাজনের কথা বলছেন, তারা প্রকারান্তরে সরকারের এজেন্ডা বাস্তবায়ন করছেন।

আমাদের এ লড়াই কারো বিরুদ্ধে নয়। এ লড়াই দেশের অস্তিত্ব রক্ষার, এ লড়াই নাগরিক মর্যাদা প্রতিষ্ঠার। গণতন্ত্র প্রতিষ্ঠা না হওয়া পর্যন্ত ফ্যাসিবাদের বিরুদ্ধে আমাদের লড়াই চলবে।

তিনি বলেন, দুর্বল পরাগায়নে ওবায়দুল কাদের সাহেবরা শত ফুল ফুটাতে পারে নাই। ফুল যেহেতু ফুটে নাই সেহেতু ফল হওয়ার সম্ভাবনা নাই। এখন যা হবে সেটা মাকাল ফল। ওবায়দুল কাদের আর নির্বাচন কমিশন মিলে মাকাল ফল মার্কা নির্বাচন করতে চাচ্ছে। জনগণ এই মাকাল ফল মার্কা নির্বাচন প্রতিহত করবে।

নুর বলেন, সরকারের একঘেয়েমির কারণে ৯০’র পর থেকে ৩ দশকে তিলে তিলে গড়ে ওঠা রপ্তানির বড় খাত গার্মেন্টস শিল্প এখন ঝুঁকিতে। পাট, চিনি ও চামড়ার পর সরকারের কারণে গার্মেন্টস শিল্পও আজ ধ্বংসের পথে। ইউরোপ-আমেরিকা পরিস্কারভাবে বলছে, শ্রমিকদের সংগঠন, ট্রেড ইউনিয়ন করার অধিকার, গণতন্ত্র, মানবাধিকার সুশাসন না থাকলে তারা বাণিজ্য অবরোধ, নিষেধাজ্ঞা দিবে।

মিছিলে গণঅধিকার পরিষদের সাধারণ সম্পাদক মুহাম্মদ রাশেদ খান, উচ্চতর পরিষদের সদস্য শহিদুল ইসলাম ফাহিম, আবু হানিফ, শাকিল উজ্জামান, ফাতিমা তাসনিম, আব্দুজ জাহের, সিনিয়র যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক হাসান আল মামুন, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক রবিউল হাসান, জিলু খান, যুব পরিষদের সভাপতি মনজুর মোর্শেদ মামুন, সাধারণ সম্পাদক নাদিম হাসান, ছাত্র অধিকার পরিষদের সহ সভাপতি সাব্বির, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক নাজমুল হাসান, গণঅধিকার পরিষদ মহানগর দক্ষিণের সভাপতি নাজিম উদ্দিন, সাধারণ সম্পাদক আব্দুুর রহিম প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

জয় পরাজয় আরো খবর

adv
সর্বশেষ সংবাদ
সাক্ষাতকার
adv
সব জেলার খবর
মুক্তমত
আর্কাইভ
December 2023
M T W T F S S
 123
45678910
11121314151617
18192021222324
25262728293031


বিজ্ঞাপন দিন

adv

মিডিয়া