adv
২৮শে জুন, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ | ১৪ই আষাঢ়, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

বার কাউন্সিল নির্বাচনে আওয়ামীপন্থীদের নিরঙ্কুশ জয়

নিজস্ব প্রতিবেদক : দেশের আইনজীবীদের সনদ প্রদান এবং নিয়ন্ত্রণের সর্বোচ্চ সংস্থা বাংলাদেশ বার কাউন্সিলের নির্বাচনে নিরঙ্কুশ জয় পেয়েছেন আওয়ামী লীগপন্থী আইনজীবীরা। কাউন্সিলের ১৪ পদের মধ্যে ১০টিতেই জয় পেয়েছে তারা।

নির্বাচনে সাতটি সাধারণ আসনের মধ্যে চার পদে এবং সাতটি গ্রুপ আসনের মধ্যে ৬ পদে বিজয়ী হয়েছে জ্যেষ্ঠ আইনজীবী সৈয়দ রেজাউর রহমান নেতৃত্বাধীন সরকার সমর্থকদের সাদা প্যানেল।

বিএনপি-জামায়াত সমর্থকদের নীল প্যানেল সাধারণ আসনে তিনটি এবং গ্রুপ আসনে একটি পদে জয় লাভ করেছে।

রবিবার রাত ৩টার দিকে কাউন্সিলের চেয়ারম্যান অ্যাটর্নি জেনারেল এ এম আমিন উদ্দিন এ ফলাফল ঘোষণা করেন। এই ফলাফল শিগগিরই গেজেট নোটিফিকেশনের মাধ্যমেও প্রকাশ করা হবে।

এর আগে রবিবার বিকেল সাড়ে চারটায় ভোট গণনা শুরু হয়।

সাদা প্যানেলের সাধারণ আসনে বিজয়ীরা হলেন- অ্যাডভোকেট মোহাম্মদ সাঈদ আহমেদ রাজা (১৭৪৩৩ ভোট), অ্যাডভোকেট সৈয়দ রেজাউর রহমান (১৭৯৩ ভোট), অ্যাডভোকেট মোহাম্মদ মোখলেসুর রহমান বাদল (১৬৮৪৪ ভোট), অ্যাডভোকেট মো. রবিউল আলম বুদু (১৫২৭ ভোট)।

গ্রুপ আসনে বিজয়ীরা হলেন- ঢাকা অঞ্চলের আইনজীবী সমিতিতে (গ্রুপ-এ) আবদুল বাতেন; বৃহত্তর ময়মনসিংহ, টাঙ্গাইল, ফরিদপুর জেলার আইনজীবী সমিতিতে (গ্রুপ বি) মো. জালাল উদ্দিন খান; বৃহত্তর কুমিল্লা জেলা ও সিলেট জেলা অঞ্চলের আইনজীবী সমিতিতে (গ্রুপ ডি) এ এফ মো. রুহুল আনাম চৌধুরী; বৃহত্তর খুলনা, বরিশাল ও পটুয়াখালী অঞ্চলের আইনজীবী সমিতিতে (গ্রুপ ই) আনিছ উদ্দিন আহমেদ সহিদ; বৃহত্তর রাজশাহী, যশোর ও কুষ্টিয়া অঞ্চলের আইনজীবী সমিতিতে (গ্রুপ এফ) মো. একরামুল হক এবং বৃহত্তর দিনাজপুর, রংপুর, বগুড়া ও পাবনা জেলার আইনজীবী সমিতিতে (গ্রুপ জি) মো. আব্দুর রহমান।

সাধারণ আসনে বিএনপিপন্থীদের বিজয়ী হয়েছেন ব্যারিস্টার এ এম মাহবুব উদ্দিন খোকন (১৬৮১১ ভোট), ব্যারিস্টার রুহুল কুদ্দুস কাজল (১৫৯৬৫ ভোট) ও অ্যাডভোকেট জয়নুল আবেদীন (১৪৭৯৬ ভোট)। এ প্যানেল থেকে গ্রুপ আসনে একমাত্র বিজয়ী প্রার্থী হচ্ছেন বৃহত্তর চট্টগ্রাম ও নোয়াখালী জেলার আইনজীবী সমিতিতে (গ্রুপ সি) এ এস এম বদরুল আনোয়ার।

২৫ মে সকাল ১০টা থেকে বিকেল ৫টা পর্যন্ত একযোগে সারা দেশের দেওয়ানী আদালতসমূহে ভোটগ্রহণ চলে।

নির্বাচনে সুপ্রিম কোর্ট আইনজীবী সমিতি ভবন ছাড়াও দেশের সব জেলা সদরের দেওয়ানি আদালত প্রাঙ্গণে একটি করে ভোটকেন্দ্র ছিল। এছাড়া বাজিতপুর, ইশ্বরগঞ্জ, দুর্গাপুর, ভাঙা, চিকন্দি, পটিয়া, সাতকানিয়া, বাঁশখালী, ফটিকছড়ি, সন্দ্বীপ, হাতিয়া, নবীনগর ও পাইকগাছা দেওয়ানী আদালত সমূহের প্রত্যেকটির অঙ্গনে একটি করে ভোটকেন্দ্র ছিল।

উল্লেখ্য, প্রতি তিন বছর পর বাংলাদেশ বার কাউন্সিলের নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। করোনার কারণে ২০২১ সালের নির্বাচন পিছিয়ে করা হচ্ছে ২০২২ সালে।

এর আগে ২০১৮ সালের ১৪ মে অনুষ্ঠিত নির্বাচনে ১৪টি আসনের মধ্যে ১২টি আসনে জয়ী হয়েছিল আওয়ামী লীগ ও তাদের সমমনা আইনজীবীরা। বিএনপি ও তাদের সমমনারা পেয়েছিলেন দুটি আসন।

চলতি বছরের ২১ মার্চ বাংলাদেশ বার কাউন্সিলের চেয়ারম্যান ও অ্যাটর্নি জেনারেল আবু মোহাম্মদ আমিন উদ্দিন নির্বাচনের গেজেট প্রকাশ করেন।

জয় পরাজয় আরো খবর

Comments are closed.

adv
সর্বশেষ সংবাদ
সাক্ষাতকার
adv
সব জেলার খবর
মুক্তমত
আর্কাইভ


বিজ্ঞাপন দিন

adv

মিডিয়া