adv
২৪শে জুন, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ | ১০ই আষাঢ়, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

জাতিসংঘ বলছে – ভারতে করোনাভাইরাস আগ্নেয়গিরির মতো ভয়াবহ রূপ নিয়েছে

আন্তর্জাতিক ডেস্ক : অতীতের সব রেকর্ড ভেঙে ভারতে একদিনে করোনাভাইরাসে প্রাণ হারিয়েছেন ৪ হাজার ২০০ মানুষ। শুক্রবার দেশটিতে নতুন করে আক্রান্ত হয়েছেন চার লক্ষাধিক। নানা পদক্ষেপ গ্রহণ করেও দেশটিতে কোনোভাবেই নিয়ন্ত্রণে আসছে না করোনা মহামারি। দেশটিতে করোনার এ ভয়াবহতাকে আগ্নেয়গিরির সঙ্গে তুলনা করেছে জাতিসংঘ।

জীবনের জয়গান এখানে নিস্তব্ধ, রাজধানী দিল্লি থেকে মহারাষ্ট্র কিংবা অন্য যে কোনো রাজ্য- সব জায়গা যেন মৃত্যুপুরীতে পরিণত হয়েছে। দেশটিতে করোনায় মৃত্যু ও শনাক্ত প্রতিদিনই আগের দিনের রেকর্ড ভাঙছে এর লাগাম কোথায় জানা নেই কারও।

গতকাল শুক্রবার আগের সব রেকর্ড ভেঙে একদিনে করোনায় সর্বোচ্চ প্রাণহানি দেখেছে ভারত। সেই সঙ্গে নতুন শনাক্তের সংখ্যা আবারও চার লাখ ছাড়াল।

যদিও মহামারি রুখতে মাহারাষ্ট্রসহ অন্য রাজ্যগুলোতে আরোপিত নিষেধাজ্ঞা আরো কঠোর করা হয়েছে। সেই সঙ্গে বাড়ানো হয়েছে টিকাদান কর্মসূচির গতিও। তবে বিশেষজ্ঞরা বলছেন, করোনা নিয়ন্ত্রণে অনেক দেরিতে পদক্ষেপ নিয়েছে জনসংখ্যার দিক থেকে বিশ্বের দ্বিতীয় বৃহত্তম দেশটি।

ভারতের করোনার লাগামহীন অবস্থাকে আগ্নেয়গিরির সঙ্গে তুলনা করেছে ইউনিসেফ। একইসঙ্গে মাহমারি নিয়ন্ত্রণে কার্যকরী ব্যবস্থা গ্রহণের পাশপাশি সর্বোচ্চ সহযোগিতার কথা জানিয়েছে সংস্থাটি।

ভারতে ইউনিসেফের প্রতিনিধি ইয়াসমিন হক বলেন, ইউনিসেফ ভারতের প্রতিদিনকার করোনর বিস্তার নিয়ে গভীরভাবে উদ্বিগ্ন। প্রথম ঢেউয়ের চেয়েও করোনা এখন অধিক গতিতে ছড়াচ্ছে। গড়ে প্রতি সেকেন্ডে চার জন নতুন করে আক্রান্ত হচ্ছেন। আর প্রতি মিনিটে মারা যাচ্ছেন দুজনের বেশি।

এদিকে ভারতীয় গণমাধ্যম এনডিটিভি জানিয়েছে, ভারতকে চিকিৎসাসহ অন্যান্য সহায়তা দেওয়া অব্যাহত রেখেছে যুক্তরাজ্যসহ বিভিন্ন দেশ। সহযোগিতা অব্যাহত রাখার ঘোষণা দিয়েছে ইউরোপীয় ইউনিয়নসহ অন্যান্য দেশও।

জয় পরাজয় আরো খবর

Comments are closed.

adv
সর্বশেষ সংবাদ
সাক্ষাতকার
adv
সব জেলার খবর
মুক্তমত
আর্কাইভ


বিজ্ঞাপন দিন

adv

মিডিয়া