যুক্তরাষ্ট্র বলছে আমার, ইংল্যান্ড বলছে আমার, মুসা তুমি কার?

স্পাের্টস ডেস্ক : যুক্তরাষ্ট্রের নিউ ইয়র্কে জম্ম ইউনুস মুসার। তার বাবা-মা ঘানাইয়ান। বেড়ে উঠেছেন ইতালিতে। ফুটবল ক্যারিয়ারের শুরুটা সেখানেই জর্জিওনি কালচো ২০০০ নামের ক্লাবে। ২০১২ সালে ভর্তি হন ইংল্যান্ডের আর্সেনাল ফুটবল একাডেমিতে। ইংল্যান্ডের অনূর্ধ্ব-১৫ ও ১৮ দলে খেলেছেন। ২০১৯ সালে যোগ দেন স্প্যানিশ ক্লাব ভ্যালেন্সিয়ার ‘বি’ দলে। গত সেপ্টেম্বরে লা লিগায় ভ্যালেন্সিয়ার সিনিয়র দলে অভিষেক।

বৃহস্পতিবার (১২ নভেম্বর) যুক্তরাষ্ট্রের জার্সি গায়ে অভিষেক হয়ে গেল। সোয়ানসিতে খেলেছেন গ্যারেথ বেলদের ওয়েলসের বিরুদ্ধে আন্তর্জাতিক প্রীতি ম্যাচে। কিন্তু কেউ নিশ্চিত নন যে ইউনুস মুসার গায়ে যুক্তরাষ্ট্রের জার্সিটাই থাকবে স্থায়ীভাবে।

১৭ বছর বয়সী প্রতিভাদীপ্ত এই ফরোয়ার্ড ঘানা, যুক্তরাষ্ট্র, ইতালি ও ইংল্যান্ড এই চার দেশের হয়েই খেলার যোগ্য। যুক্তরাষ্ট্রের হয়ে ওয়েলসের সঙ্গে গোলশূন্য ম্যাচটিতে তো খেলেই ফেললেন। তবে জাতীয় দলের হয়ে আন্তর্জাতিক প্রীতি ম্যাচ খেলে কোনো খেলোয়াড় সেই দলে স্থায়ী হয়ে যায় না। প্রতিযোগিতামূলক ফুটবল খেলেই স্থায়ী হতে হয়। আর সে কারণেই মুসার এখনও সুযোগ আছে ঘানা, ইংল্যান্ড ও ইতালির হয়ে খেলার। – দ্য সান

ইংল্যান্ড ফুটবল অ্যাসোসিয়েশন (এ্ফএ) তাকে প্রলুব্ধ করেই চলেছে। ইংল্যান্ড কোচ গ্যারেথ সাউথগেট তাকে চাইছেন ভীষণ করে। মুসা শুধু যে রাইট উইংয়ে খেলেন তা তো নয়। খেলতে পারেন সেন্ট্রাল মিডফিল্ডে, বক্স-টু-বক্স মিডফিল্ডার হিসেবে। এরকম প্রতিভাদীপ্ত একজন ফুটবলার ইংলিশদের চাই-ই চাই।

মুসার জন্ম ২০০২ সালের ২৯ নভেম্বর। তবে এই অল্প বয়সেই পেশাদার ফুটবলে পা রাখায় নিজের ভবিষ্যৎ নিয়ে ভাবতে পারেন। সেজন্যই ইংল্যান্ডের ডাক উপেক্ষা করতে পারছেন না মুসা। আমেরিকার চেয়ে ইংল্যান্ডের ফুটবল-সংস্কৃতি যে অনেক উঁচুমানের।
আবার এটাও ঠিক, আমেরিকা উচ্চাভিলাষী প্রকল্প নিয়ে এগোতে চাইছে বিশ্ব ফুটবলে। একগুচ্ছ প্রতিভাবান তরুণ ফুটবলার দাপটের সঙ্গে খেলছেন নামিদামি সব পেশাদার লিগগুলোতে। এদের একসূত্রে গেঁথে নিতে পারলে বিশ্বকাপ জিততে বেশি পথ পাড়ি দিতে হবে না বলেই বিশ্বাস যুক্তরাষ্ট্রের কোচ গ্রেগ বারহল্টারের।

উদীয়মান এই তারকা মুসাকে খসিয়ে নেওয়ারই চেষ্টা করছে ইংল্যান্ড। যুক্তরাষ্ট্র অবশ্য সতর্ক। কোচ বারহল্টার মুসার দিকে ইগলচোখে তাকিয়ে আছেন। যুক্তরাষ্ট্রের এই কোচ বার বারই ইংল্যান্ডের দিকে আঙুল তুলে বলছেন, মুসা আমাদের খেলোয়াড়। ইংল্যান্ড তো আগেই হুংকার দিয়ে রেখেছে, মুসা আমাদের আর্সেনাল ফুটবল একাডেমির খেলোয়াড়। ফুটবলে ইংল্যান্ডই ওর (মুসা) ঘর। – দ্য সান/ নিউয়র্ক টাইমস

স্প্যানিশ ক্রীড়া দৈনিক মার্কায় উসাইন বোল্ট, আমার চেয়েও রোনালদোর গতি অনেক বেশি

স্পোর্টস ডেস্ক : অনেক আগেই অবসরে চলে গেছেন ট্র্যাক এন্ড ফিল্ডের রাজা উসাইন বোল্ট। তবে বিশ্বের দ্রুততম মানবের রেকর্ডটা এখনও রয়ে গেছে তার দখলে। অথচ সেই তিনিই কিনা বলছেন, এখন আর দ্রুততম নন তিনি। শ্রেষ্ঠত্বের মুকুট তিনি পরাচ্ছেন ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদোর মাথায়। অবসরে চলে যাওয়া ক্যারিবিয়ান কিংবদন্তি জানাচ্ছেন, এই মুহূর্তে তার চেয়ে বেশি গতি পর্তুগিজ উইঙ্গারের।

ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের সমর্থক বোল্ট। এক সময় ইংলিশ ক্লাবটির জার্সি গায়ে রোনালদো মাতিয়েছেন বলে তার প্রতিও আছে সাবেক স্প্রিন্টারের অসম্ভব রকমের ভালোবাসা। ট্র্যাক অ্যান্ড ফিল্ডে অলিম্পিকে সর্বোচ্চ সোনাজয়ী সাবেক এই তারকা এখনও মুগ্ধ রোনালদোর পারফরম্যান্সে। ক্রীড়াঙ্গনে দুজনের জায়গা আলাদা হলেও একের অন্যকে অনেকবারই প্রশংসায় ভাসিয়েছেন। আরেকবার বোল্টের মুখে স্তুতি ঝরলো রোনালদোর।

ট্র্যাক অ্যান্ড ফিল্ডকে বিদায় বললেও ১০০ মিটারে এখনও বিশ্বের দ্রুততম বোল্ট। ২০০৯ সালে বার্লিনের বিশ্ব চ্যাম্পিয়নশিপে মাত্র ৯.৫৮ সেকেন্ডে দৌড় শেষ করে গড়েছিলেন চোখ ধাঁধানো রেকর্ডটি। তিনি অবসরে গেলেও ৩৫ বছর বয়সে ফুটবল মাঠ মাতিয়ে চলেছেন রোনালদো। রিয়াল মাদ্রিদ ছেড়ে জুভেন্টাসে যোগ দিয়েও গোল বন্যায় ভাসাচ্ছেন প্রতিপক্ষদের।

রোনালদোর ফিটনেস ও বর্তমান পরিস্থিতি বিবেচনা করে তাকেই দ্রুততম মনে করছেন বোল্ট। স্প্যানিশ ক্রীড়া দৈনিক মার্কায় দেওয়া সাক্ষাৎকারে ক্যারিবিয়ান কিংবদন্তি বলেছেন, নিশ্চিতভাবেই রোনালদো (এখন আমার চেয়ে দ্রুততম)। সে এখন প্রতিদিন অনুশীলন করে যাচ্ছে এবং সে সুপার অ্যাথলেট।

স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের সংবাদ বিজ্ঞপ্তি – দেশে একদিনে করোনায় আরও ১৪ জনের মৃত্যু, আক্রান্ত ১ হাজার ৫৩১

নিজস্ব প্রতিবেদক : দেশে করোনায় (কোভিড-১৯) আক্রান্ত হয়ে আরও ১৪ জনের মৃত্যু হয়েছে। এ নিয়ে মোট মারা গেছেন ৬ হাজার ১৭৩ জন। গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে আক্রান্ত হয়েছেন ১ হাজার ৫৩১ জন। এ নিয়ে মোট আক্রান্তের সংখ্যা ৪ লাখ ৩০ হাজার ৪৯৬ জন।

শনিবার (১৪ নভেম্বর) দুপুরে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়।

সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, গত ২৪ ঘণ্টায় ১১ হাজার ৭৯৫ জনের নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে। এর মধ্যে ১ হাজার ৫৩১ জনের দেহে কোভিড-১৯ সংক্রমণ পাওয়া গেছে। এ নিয়ে মোট আক্রান্তের সংখ্যা ৪ লাখ ৩০ হাজার ৪৯৬ জন। গত ২৪ ঘণ্টায় ১৪ জনের মৃত্যু হয়েছে। করোনায় এ পর্যন্ত ৬ হাজার ১৭৩ জনের মৃত্যু হয়েছে।

এতে আরও বলা হয়, গত ২৪ ঘণ্টায় কোভিড-১৯ সংক্রমণ থেকে মুক্ত হয়েছেন ১ হাজার ৪৬২ জন। এ পর্যন্ত সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরে গেছেন ৩ লাখ ৪৭ হাজার ৮৪৯ জন।

এদিকে সারা বিশ্বে এখন পর্যন্ত ৫ কোটি ৩৭ লাখ ৯৮ হাজার ১৪৩ জন করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। মারা গেছেন ১৩ লাখ ১০ হাজার ২৬৯ জন। বিপরীতে সেরে উঠেছেন ৩ কোটি ৭৫ লাখ ৭৩ হাজার ৬৪ জন। বাংলাদেশে এখন পর্যন্ত করোনায় মৃত্যু হয়েছে ৬ হাজার ১৭৩ জনের। মোট আক্রান্ত হয়েছেন ৪ লাখ ৩০ হাজার ৪৯৬ জন।

বীর মুক্তিযোদ্ধাদের নামে রাস্তাঘাটের নামকরণের নির্দেশ

নিজস্ব প্রতিবেদক : মহান মুক্তিযুদ্ধে অংশগ্রহণকারী বীর মুক্তিযোদ্ধাদের নামে রাস্তাঘাটের নামকরণ করতে নির্দেশ প্রদান করেছে মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক মন্ত্রণালয়। সম্প্রতি মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক মন্ত্রণালয় থেকে সারাদেশের জেলা প্রশাসক (ডিসি) ও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তাদের (ইউএনও) কাছে এ সংক্রান্ত চিঠি পাঠানো হয়েছে।

চিঠিতে বলা হয়, মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির বৈঠকে সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে যে- বিভিন্ন রাস্তাঘাট বীর মুক্তিযোদ্ধাদের নামে নামকরণ করার জন্য সব উপজেলার ইউএনও এবং ডিসিদের পত্র দিয়ে জানিয়ে দেয়ার সুপারিশ করেছে কমিটি।

গত বছরের ২৮ মার্চ স্থানীয় সরকার বিভাগের জারি করা অফিস আদেশ অনুযায়ী, স্থানীয় সরকার প্রকৌশল অধিদফতরের আওতায় নির্মিত সড়ক ও অন্যান্য অবকাঠামো বীর মুক্তিযোদ্ধাদের নামে নামকরণ সংক্রান্ত আবেদন/প্রস্তাব যাচাই-বাছাইক্রমে প্রয়োজনীয় সুপারিশ প্রণয়নের জন্য স্থানীয় সরকার বিভাগের অতিরিক্ত সচিবের (উন্নয়ন) সভাপতিত্বে ছয় সদস্যবিশিষ্ট একটি কমিটি রয়েছে।

এ অবস্থায় মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত স্থায়ী কমিটির ১৩তম বৈঠকের সিদ্ধান্তের আলোকে সব জেলা/উপজেলার বিভিন্ন রাস্তাঘাট বীর মুক্তিযোদ্ধাদের নামে নামকরণের পরবর্তী প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য ডিসি ও ইউএনওদের নির্দেশনামূলক ওই চিঠি পাঠানো হয়েছে।

সরকার নিজেদের এজেন্ট দিয়ে নাশকতা করে অন্যের ওপর চাপাতে চায় : মির্জা ফকরুল

নিজস্ব প্রতিবেদক : কোনো নাশকতার সঙ্গে বিএনপির সম্পর্ক নেই, অপরাধীদের আইনের আওতার দাবি জানিয়েছেন বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।

ফখরুল বলেন, রাজধানীতে বাস পোড়ানো কোনো বিচ্ছিন্ন ঘটনা নয়, এটা পূর্ব পরিকল্পিত ঘটনা। সরকার নিজেদের এজেন্ট দিয়ে এসব নাশকতা করে এর দায় অন্যদের ওপর চাপাতে চায়।

শনিবার (১৪ নভেম্বর) রাজধানীর জাতীয় প্রেসক্লাব মিলনায়তনে বাংলাদেশ ফেডারেল সাংবাদিক ইউনিয়নের (বিএফইউজে) দ্বিবার্ষিক কাউন্সিল-২০২০ এ প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন তিনি।

মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেন, বাংলাদেশ রাষ্ট্র এখন জনকল্যাণের জন্য নয়, জনগণের জন্য নয়। দেশ এখন লুটেরাদের দখলে চলে গেছে, খুন-নির্যাতনকারীদের দখলে চলে গেছে। এখানে সংবাদপত্রের কোনো স্বাধীনতা নেই, বিচার বিভাগের স্বাধীনতা নেই, আইনশৃংখলা বাহিনীকে নিজেদের মতো করে চালানো হচ্ছে। দেশে চরম সংকট চলছে। চলমান এ সংকট বর্তমান ফ্যাসিবাদি সরকার তৈরি করেছে।

দেশের সংকট মোকাবিলায় তিনি সবাইকে ঐক্যবদ্ধ হওয়ার আহ্বান জানান।

তিনি বলেন, সাংবাদিক, রাজনীতিবিদ, চিকিৎসকসহ সবাইকে নিয়ে জাতীয় ঐক্য করে অধিকার আদায় করতে হবে, গণতন্ত্রকে ফিরিয়ে আনতে হবে।

এসময় তিনি বন্ধ মিডিয়া খুলে দেওয়ার পাশাপাশি আটক সাংবাদিক নেতাদের মুক্তির দাবি জানান।

তিনি বলেন, বিনা কারণে গণমাধ্যমের কণ্ঠরোধ করতে সাংবাদিক নির্যাতন করা হচ্ছে।

ফেডারেল সাংবাদিক ইউনিয়ন (বিএফইউজে) একাংশের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি নুরুল আমিন রোকনের সভাপতিত্বে আয়োজিত অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন ২০ দলীয় নেতা মিয়া গোলাম পরোয়ার, পেশাজীবী পরিষদ নেতা সিনিয়র সাংবাদিক শওকত আজিজ, সিনিয়র সাংবাদিক কামাল উদ্দিন সবুজ, কবি আব্দুল হাই শিকদার প্রমুখ।

বিএনপি জনগণ থেকে প্রত্যাখ্যাত হয়ে আগুন সন্ত্রাস করছে – বললেন ওবায়দুল কাদের

নিজস্ব প্রতিবেদক : নির্বাচন ও আন্দোলনে জনগণ থেকে প্রত্যাখ্যাত হয়ে বিএনপি আবারও আগুন সন্ত্রাসের মাধ্যমে মানুষ পুড়িয়ে প্রতিশোধ নিতে চাচ্ছে বলে মন্তব্য করেছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের।

শনিবার (১৪ নভেম্বর) সকালে রাজশাহী জেলার বাগমারা উপজেলা আওয়ামী লীগের সম্মেলনে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি একথা বলেন।

ওবায়দুল কাদের তাঁর সরকারি বাসভবন থেকে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে সম্মেলনে যুক্ত হয়ে বলেন, ‘সংগঠনের জন্য সাংগঠনিক ঐক্যের বিকল্প নেই। সংগঠনকে মজবুত জনবহুল তরীতে পরিণত করতে হলে আপনাদের ঐক্যবদ্ধ থাকতে হবে। ছোট ছোট বিষয়ে মতের অমিল থাকলে তা নিজেরা বসে মিটিয়ে ফেলুন। চা দোকানে বসে দলের একজন নেতা আরেকজন নেতার বিরুদ্ধে কথা বলবেন, সেটা আমাদের জন্য সম্মানের নয়। সেটা আওয়ামী লীগের মর্যাদাকেই ক্ষুণ্ন করে। ঘরের বিবাদ ঘরে বসেই মিটিয়ে ফেলুন।’

দলের ত্যাগী নিবেদিত কর্মীদের মূল্যায়ন করার নির্দেশনা দিয়ে সেতুমন্ত্রী বলেন, ‘একটি রাজনৈতিক দলের প্রাণ হচ্ছে নিবেদিত কর্মী বাহিনী। সম্মেলনের মাধ্যমে কমিটি গঠনের নির্দেশনা দিয়েছেন আমাদের নেত্রী দেশরত্ন শেখ হাসিনা। দলীয় নেতাকর্মীদের বলবো, নিজের অবস্থান ভারি করার জন্য ত্যাগী নেতাকর্মীদের বাদ দিয়ে নিজের লোক দিয়ে কমিটি করা যাবে না। করা যাবে না কোনও পকেট কমিটি।

দলকে শক্তিশালী করতে হলে নিবেদিত প্রাণ কর্মীদের দিয়ে সংগঠন করতে হবে। চিহ্নিত অপরাধী, চিহ্নিত চাঁদাবাজ, চিহ্নিত দখলদার, চিহ্নিত মাদকসেবী, চিহ্নিত মাদক ব্যবসায়ী, চিহ্নিত সাম্প্রদায়িক অপশক্তি, নারী নির্যাতনকারী, বিতর্কিত ব্যক্তিদের দলে আনা যাবে না। শুধু তাই না। ধর্ষক, ধর্ষণের সঙ্গে সংশ্লিষ্ট এদের শুধু রাজনৈতিক প্রশ্রয়ই-আশ্রয়ই বন্ধ নয়, এসব ঘৃণ্য অপরাধীদের জন্য আওয়ামী লীগের দরজা চিরতরে বন্ধ করে দিতে হবে।’

আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক তার সরকারি বাসভবন থেকে ভিডিও কনফারেন্সে যুক্ত হয়ে বলেন, ‘সম্প্রতি দলীয় কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী সংসদের সভায় স্বাস্থ্যবিধি মেনে সারাদেশে দলের সাংগঠিনক কার্যক্রম চালু রাখার সিদ্ধান্ত নিয়েছি। এরপর প্রথমে গাজীপুর, পরে মানিকগঞ্জে দুটি বর্ধিত সভায় যোগ দিয়েছি। এভাবে অন্যান্য জেলা-উপজেলায় সম্মেলন করা হবে।’

তিনি বলেন, ‘দলের সভাপতি শেখ হাসিনার নির্দেশ, সংগঠননের কোথাও কোনও কলহ বা দ্বন্দ্ব থাকলে অবিলম্বে তা দূর করতে হবে। দলকে করতে হবে শক্তিশালী। জেলা থেকে উপজেলা, ইউনিয়ন, ওয়ার্ড পর্যায় পর্যন্ত শক্তিশালী সংগঠন গড়ে তোলাই হবে জেলা আওয়ামী লীগের প্রধান লক্ষ্য।’

কাদের আরও বলেন, ‘ত্যাগী ও নিবেদিত প্রাণ কর্মীদের মূল্যায়ন করতে হবে। দুঃসময়ে তারাই দলের পাশে থাকে সুসময়ের কোকিলরা তখন সটকে পড়ে। তাই ত্যাগী নেতাকর্মীদের মূল্যায়ন করতে হবে।’

করোনাভাইরাস মোকাবিলায় সরকারের সফলতা তুলে ধরে বলেন, ‘করোনাভাইরাস মোকাবিলায় সারাবিশ্ব যখন হিমশিম খাচ্ছে, সেখানে বাংলাদেশ আল্লাহর রহমতে শেখ হাসিনার যোগ্য নেতৃত্বে। তিনি আছেন বলেই এই অবস্থাকে মোকাবিলা করতে পেরেছেন। তার দূরদর্শী নেতৃত্বে আজ আমরা অনেকটা করোনাকে নিয়ন্ত্রণ করতে পেরেছি।’

রিয়াদের বদলে সাকিবকে দলে চেয়েছিলো পাকিস্তানের মুলতান সুলতান

স্পোর্টস ডেস্ক : নিয়মের বেড়াজালে সাকিব আল হাসানকে দলে নিতে পারেনি পাকিস্তান সুপার লিগের (পিএসএল) দল মুলতান সুলতানস। মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ করোনা আক্রান্ত হওয়ার পর বদলি হিসেবে সাকিবকে দলে নিতে চেয়েছিল পিএসএলের পঞ্চম আসরের লিগ পর্বের শীর্ষ দলটি।

পিএসএলের লিগ পর্ব অনুষ্ঠিত হয় গত মার্চে। পূর্বনির্ধারিত সূচি অনুযায়ী মার্চেই আসর শেষ হওয়ার কথা। কিন্তু করোনার আতঙ্কে মাঝপথেই বন্ধ হয় লিগটি। অসমাপ্ত প্লে-অফের খেলাগুলো শুরু হবে আজ শনিবার (১৪ নভেম্বর) থেকে।

প্লে-অফের জন্য পয়েন্ট টেবিলের শীর্ষে থেকে লিগ পর্ব শেষ করা মুলতান সুলতানস দলে ভেড়ায় বাংলাদেশ দলের টি-টোয়েন্টি অধিনায়ক মাহমুদউল্লাহ রিয়াদকে। পাকিস্তানে উড়াল দেওয়ার প্রস্তুতি নিয়ে রিয়াদ জানতে পারেন, তার শরীরে বাসা বেঁধেছে করোনা। শেষমেশ আর পিএসএলের যোগ দেওয়া হয়নি তার।

তখন মুলতান রিয়াদের বদলির খোঁজ করে। বদলি হিসেবে সদ্য নিষেধাজ্ঞা শেষ করা সাকিবকে দলে চেয়েছিল ফ্র্যাঞ্চাইজিটি। তবে নিয়মের বেড়াজালে পিএসএলের যোগ দেওয়া হয়নি সাকিবের।

সাকিবকে দলে নিতে না পারার মূল কারণ- পঞ্চম পিএসএলের ড্রাফট যখন অনুষ্ঠিত হয়েছিল, তখন সাকিব ছিলেন নিষেধাজ্ঞায়। ড্রাফটে ছিলেন না, এমন ক্রিকেটার হিসেবে ফ্যাফ ডু প্লেসিস দল পান প্লে-অফে। সাকিব ড্রাফটে না থাকাতেও সমস্যা ছিল না। বাঁধ সাধে ড্রাফট চলাকালে তার নিষেধাজ্ঞা।

ডেইলি এক্সপ্রেস সহ পাকিস্তানের গণমাধ্যমগুলো জানিয়েছে, রিয়াদ করোনা আক্রান্ত হয়ে মাঠের বাইরে ছিটকে পড়ার পর সাকিবকেই দলে নিতে চেয়েছিল মুলতান সুলতানস। রিয়াদের মত করোনা আক্রান্ত হয়ে ছিটকে পড়েন দলের আরেক সদস্য জেমস ভিন্স। শেষ পর্যন্ত তাদের বদলি হিসেবে মুলতান দলে ভেড়ায় জো ডেনলি ও ব্রেন্ডন টেলরকে। – বিডি ক্রিকটাইম/ ডেইলি এক্সপ্রেস

মুরগি ব্যবসায় মহেন্দ্র সিং ধোনি

স্পাের্টস ডেস্ক : আন্তর্জাতিক ক্রিকেট থেকে অবসর নেওয়ার পর আরব আমিরাতে আইপিএলে কেরিয়ারের সব থেকে খারাপ সময়ের মধ্যে দিয়ে গেলেন মহেন্দ্র সিং ধোনি। লকডাউনে প্রাক্তন ভারত অধিনায়ককে কৃষিকাজ করতে দেখা গিয়েছে। এবার কি তবে দেশে ফিরে অন্য কাজে মন দিলেন মাহি।

জানা গিয়েছে, কুচকুচে কালো রঙের কড়কনাথ মুরগির ২০০০টি ছানার অর্ডার দিয়েছেন নাকি মাহি। মধ্যপ্রদেশের ঝাবুয়া থেকে এই মুরগি আসতে চলেছে ধোনির রাঁচির ফার্ম হাউসে। মধ্যপ্রদেশের ঝাবুয়া জেলার থান্ডলা ব্লকের বিনোদ মেন্দার কাছ থেকে কড়কনাথ মুরগি কিনেছেন মাহি। ১৫ ডিসেম্বরের মধ্যে সেই ২০০০ কড়কনাথ মুরগি রাঁচিতে ধোনির ফার্ম হাউসে ডেলিভারি হওয়ার কথা।

প্রসঙ্গত কড়কনাথ মুরগির ‘জি আই’ ট্যাগ রয়েছে। এই কালো মুরগির মাংস সুস্বাদু ও পুষ্টিগুণ রয়েছে। এই মাংস ফ্যাট এবং কোলেস্টেরল মুক্ত। আন্তর্জাতিক ক্রিকেট থেকে অবসর নেওয়া ধোনিকে আইপিএলে একেবারে অন্যভাবে দেখতে চেয়েছিলেন মাহিভক্তরা। দীর্ঘদিন পর বাইশ গজে প্রতিযোগিতামূলক ক্রিকেটে ফিরলেও সাবেক ভারত অধিনায়কের পারফরম্যান্স একেবারেই আহামরি নয়। ব্যাট হাতে ধোনির সেই ক্যারিশমা উধাও। এবার আইপিএলে চেন্নাইয়ের হয়ে একটি হাফ সেঞ্চুরিও করতে পারেননি ধোনি। ১৪ ম্যাচে করেছেন মাত্র ২০০ রান। আইপিএলের এত বছরের ইতিহাসে কোনও বার এমনটা হয়নি। – জি নিউজ/ আজকাল

কোহলি বেশি রান করা পছন্দ নয় অস্ট্রেলিয়ান অধিনায়ক টিম পেইনের

স্পোর্টস ডেস্ক : বর্তমান বিশ্বের সেরা ব্যাটসম্যানদের মধ্যে অন্যতম বিরাট কোহলি। তাঁর ব্যাটিং দেখা যেন চোখের প্রশান্তি। যে কারণে ব্যাটসম্যান কোহলিকে পছন্দ না করে উপায় নেই। ভিন্নতা নেই অস্ট্রেলিয়ার টেস্ট অধিনায়ক টিম পেইনের কাছেও। যদিও প্রতিপক্ষ হিসেবে তাকে ঘৃণাই করেন পেইন।

এবিসি স্পোর্টসকে দেয়া এক সাক্ষাৎকারে অজি টেস্ট অধিনায়ক জানিয়েছেন, ক্রিকেট অনুরাগী হিসেবে কোহলির ব্যাটিং দেখতে পছন্দ করেন তিনি। কিন্তু তিনি বেশি রান করুক সেটা তাঁর পছন্দ নয়।

সবকিছু ঠিক থাকলে আগামী বছরের জানুয়ারিতে সন্তানের মুখ দেখবেন ভারতীয় অধিনায়ক। সন্তানসম্ভাবা স্ত্রীর পাশে থাকতে অস্ট্রেলিয়া সফরে একটি মাত্র টেস্ট খেলে দেশে ফিরবেন কোহলি। পুরো সিরিজে সময়ের ভারতীয় অধিনায়কের না থাকা কিছুটা হলেও স্বস্তি দেবে অজিদের।

কারণ প্যাট কামিন্স-মিচেল স্টার্কদের বিপক্ষে তিনি কতটা ভয়ংকর সেটা বেশ ভালোভাবেই জানেন অজি কাপ্তান। অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে খেলা ৩৪ ইনিংসে ৪৮.৬ গড়ে ১৬০৪ রান করেছেন তিনি। যেখান ৪ হাফ সেঞ্চুরির সঙ্গে রয়েছে ৭ সেঞ্চুরি। যে কারণে প্রতিপক্ষ হিসেবে তাকে ঘৃণা না করে উপায় নেই।
পেইন বলেন, আমি বিরাট কোহলি সম্পর্কে অনেক প্রশ্ন জিজ্ঞাসা করেছি, সে আমার কাছে আরেকজন খেলোয়াড়ের মতো যে আমাকে বেশি ভাবায় না। সত্যি বলতে তা সঙ্গে আমার এমন কোন মধুর সম্পর্কে নেই। আমি তাকে টস করার সময় দেখি, তার বিপক্ষে খেলি, বিষয়টা এমনই।

তিনি আরও বলেন, বিরাটের যে বিষয়টা এটা একটু হাস্যকর, আমরা ওকে (কোহলি) অপছন্দ করি কিন্তু একজন ক্রিকেট ভক্ত হিসেবে তার ব্যাটি উপভোগ করি। সে এই পরিস্থিতিটাকে বানিয়ে নিয়েছে। তার ব্যাটিং দেখতে ভালো লাগে কিন্তু আমাদের বিপক্ষে বেশি রান করুক এটা চাই না।

ওয়ানডে ও টি-টোয়েন্টি সিরিজ শেষে গোলাপি বলের টেস্ট দিয়ে শুরু হবে চার ম্যাচের টেস্ট সিরিজ। ১৭ ডিসেম্বর অ্যাডিলেড ওভালে হবে দিবারাত্রির ম্যাচটি। দ্বিতীয় টেস্ট হবে ২৬ ডিসেম্বর, মেলবোর্নে। তৃতীয় টেস্ট ৭ জানুয়ারি, সিডনিতে। সিরিজের চতুর্থ ও শেষ টেস্ট হবে ১৫ জানুয়ারি, গ্যাবাতে। – ক্রিকফ্রেঞ্জি / এবিসি স্পোর্টস

বিশ্বকাপ বাছাই, অনেক কষ্টে ভেনেজুয়েলাকে হারালো ব্রাজিল

স্পোর্টস ডেস্ক : ম্যাচের ফলাফল দেখলে মনে হয় ব্রাজিলের নামের প্রতি বেশ অবিচার হয়েছে। বিশ্বকাপের বাছাই পর্বে ভেনেজুয়েলার বিরুদ্ধে অনেক কষ্টে জয় পেয়েছে পাঁচবারের বিশ্ব চ্যাম্পিয়নরা। তবে এই মুহূর্তে ব্রাজিলের এই পারফরমেন্স একেবারে অপ্রত্যাশিত নয়। চোট আর করোনাভাইরাসের থাবায় নিয়মিত একাদশের কয়েক জনকে হারানো ব্রাজিলের পারফরম্যান্স এটাই হওয়ার কথা। কষ্টে হলেও বিশ্বকাপ বাছাইপর্বে প্রত্যাশিত জয় তুলে নিয়েছে কোচ তিতের দল।

সাও পাওলোর মোরুম্বি স্টেডিয়ামে বাংলাদেশ সময় শনিবার সকালে ১-০ গোলে জিতেছে পাঁচবারের বিশ্ব চ্যাম্পিয়নরা। একমাত্র গোলটি করেন রবের্তো ফিরমিনো।

পায়ের মাংসপেশির চোটে ছিটকে পড়া নেইমারের অনুপস্থিতিতে বেশ ভুগতে দেখা গেল ব্রাজিলের আক্রমণভাগকে। আর চোটে পড়া ফিলিপে কৌতিনিয়ো ও ফাবিনিয়ো এবং করোনাভাইরাসের আক্রান্ত কাসেমিরোকে ছাড়া মাঝমাঠ থেকে গড়ে ওঠেনি খুব বেশি আক্রমণ।
ফলাফল-আগের ২৫ বারের মুখোমুখি লড়াইয়ে ২১ বারই জেতা ব্রাজিলকে এবার বেশ লড়াই করতে হলো। তবে বিশ্বকাপ বাছাইপর্বে ভেনেজুয়েলার বিপক্ষে অজেয় ধারা ঠিকই ধরে রেখেছে তারা। এই নিয়ে বাছাইয়ের ১৭ ম্যাচে ষোড়শ জয় পেল ব্রাজিল, অন্যটি ড্র।
প্রথম দুই ম্যাচে হারা ভেনেজুয়েলাকে শুরু থেকেই চেপে ধরে ব্রাজিল। অষ্টম মিনিটে প্রথম উল্লেখযোগ্য আক্রমণেই বল জালে পাঠান গাব্রিয়েল জেসুস। তবে অফসাইডের জন্য গোল মেলেনি। তিন ম্যাচে শতভাগ সাফল্যে ৯ পয়েন্ট নিয়ে শীর্ষে ব্রাজিল। ২ পয়েন্ট কম নিয়ে দ্বিতীয় স্থানে আর্জেন্টিনা। ৬ পয়েন্ট নিয়ে তিন নম্বরে একুয়েডর।

কলম্বিয়ার মাঠে ৩-০ গোলে জেতা উরুগুয়ে সমান ৬ পয়েন্ট নিয়ে আছে চার নম্বরে। ৫ পয়েন্ট নিয়ে পঞ্চম স্থানে আছে প্যারাগুয়ে। আরেক ম্যাচে পেরুকে ২-০ গোলে হারানো চিলি ৪ পয়েন্ট নিয়ে আছে ছয় নম্বরে। বাছাইপর্বে পরের রাউন্ডে বাংলাদেশ সময় আগামী বুধবার ভোরে উরুগুয়ের মাঠে খেলবে ব্রাজিল। আর বাংলাদেশ সময় আগের দিন রাতে ঘরের মাঠে চিলির বিপক্ষে খেলবে ভেনেজুয়েলা। গোল ডটকম/রিওটাইমস