স্বামীর মনোসংযোগ পেতে পায়ের আঙুল কামড়ে দিলেন সাক্ষী!

স্পাের্টস ডেস্ক : সোশ্যাল মিডিয়ায় বরাবরই ভীষণ সক্রিয় তিনি। বিশেষ করে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ইনস্টাগ্রামে প্রায় প্রত্যেকদিনই কোনও না কোনও পোস্ট করে অনুরাগীদের সঙ্গে সংযোগস্থাপনের চেষ্টা করেন মহেন্দ্র সিং ধোনি পতœী সাক্ষী। দিনকয়েক আগে সাক্ষীর ইনস্টাগ্রাম স্টোরিতে লন-মোয়ার চালাতে দেখা গিয়েছিল মাহিকে। কিন্তু রোববার এমন একটি পোস্ট করলেন তিনি যা দেখে অনুরাগীদের চোখ কপালে ওঠার জোগাড়।
মিস্টার অ্যান্ড মিসেস ধোনির মধ্যে মশকরা-খুনসুটি নিত্য সঙ্গী। দিনকয়েক আগে ধোনি যেমন মজার ছলে স্ত্রীর বিরুদ্ধে অভিযোগ করেছিলেন যে ইনস্টাগ্রামে নিজের ফলোয়ার বাড়াতে সাক্ষী তাকে হাতিয়ার করেন। রোববার সত্যিই ফের একবার সাক্ষীর পোস্ট করা একটি ছবির কেন্দ্রবিন্দু মাহি। ছবিতে দেখা যাচ্ছে ধোনি বিছানায় শুয়ে আপন মনে ব্যস্ত ভিডিও গেমে। স্ত্রী সাক্ষীর প্রতি কোনওরকম ভ্রূক্ষেপই নেই তাঁর। সে কারণে ধোনির পায়ের আঙুল কামড়াতে উদ্যত হয়েছেন সাক্ষী।
ঠিকই শুনেছে। ধোনির মনোসংযোগ পেতে খানিকটা বাধ্য হয়েই তার পা কামড়ানোর চেষ্টা করছেন সাক্ষী। এমনই একটি ছবি ইনস্টাগ্রামে পোস্ট করে সাক্ষী লিখেছেন, মিস্টার সুইটির’র থেকে তুমি যখন মনোসংযোগ পেতে চাও। অর্থাৎ বেটার হাফকে ‘মিস্টার সুইটি’ বলে পোস্টে সম্বোধন করেছেন সাক্ষী। আর ধোনির মনোসংযোগ পেতে সাক্ষীর এই কান্ডকারখানা বেশ মনে ধরেছে নেটাগরিকদের। এটাকে সেলেব কাপলের নিত্যদিনের খুনসুটিরই অঙ্গ বলে মনে করছেন অনেকে।
তবে পরিস্থিতি যাই হোক, সাক্ষী যে ধোনি অন্ত প্রাণ সেটা বলাই বাহুল্য। দিনকয়েক আগে একটি এনজিও’কে করোনা মোকাবিলায় মাত্র এক লাখ টাকা সাহায্য করায় নেটিজেনদের প্রবল সমালোচনার মাঝে পড়তে হয় ধোনিকে। কিন্তু বেটার হাফের সমালোচনার বিরুদ্ধে রুখে দাড়িয়েছিলেন সাক্ষী। এভাবেই মাঠ হোক কিংবা মাঠের বাইরে, ধোনিকে মানসিক শক্তি জুগিয়ে যান সাক্ষী। -কলকাতা টোয়েন্টি ফোর

জয় পরাজয় আরো খবর