adv
৫ই আগস্ট, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ | ২১শে শ্রাবণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

দুই মাস ধরে ইসির সংলাপকে লোক দেখানো বললেন ফকররুল

FAKRULনিজস্ব প্রতিবেদক : রাজনৈতিক দলসহ বিভিন্ন মহলের সঙ্গে সংলাপের মাধ্যমে নির্বাচন কমিশন (ইসি) সুষ্ঠু নির্বাচন করতে পারবে কি না তা নিয়ে সন্দেহ প্রকাশ করেছেন বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। তিনি বলেছেন, ইসি দুই মাস ধরে যে সংলাপ করেছে সেটি ছিল লোক দেখানো।

২৫ অক্টােবর বুধবার দুপুরে রাজধানীর রমনায় ইঞ্জিনিয়ার্স ইনস্টিটিউশন মিলনায়তনে এক প্রতিবাদ সভায় তিনি এ কথা বলেন। বিএনপির সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান তারেক রহমানের বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারির প্রতিবাদে কর্মসূচিটি আয়োজন করে বিএনপির ঢাকা মহানগর দক্ষিণ শাখা।

ফখরুল বলেন, ‘ইসির সংলাপে অংশ নেওয়া প্রায় সবাই বলেছে নির্বাচনকালীন নিরপেক্ষ সরকার ছাড়া সুষ্ঠু নির্বাচন সম্ভব নয়। এখন জাতি তাকিয়ে আছে ইসি কী করে তা দেখতে।’

কিন্তু ইসি কিছুই করতে পারবে না- এমন সংশয় প্রকাশ করে ফখরুল বলেন,  ‘সরকারের বাইরে গিয়ে তাদের কাজ করার শক্তি নেই। এরপরও আমরা পর্যবেক্ষণ করছি, তারা নিরপেক্ষ নির্বাচনের ব্যবস্থা করে কি না, যাতে মানুষ নির্ভয়ে ভোট দিতে পারে।’

এ সময় তিনি বিরোধী রাজনৈতিক দলগুলোর সঙ্গে আলোচনার মাধ্যমে সুষ্ঠু ও গ্রহণযোগ্য নির্বাচনের পথ বের করতে সরকারের প্রতি আহ্বান জানান।

বর্তমান সরকারের সময় শেষ হয়ে এসেছে, তাদের পায়ের নিচে মাটি নেই বলে দাবি করেন বিএনপির মহাসচিব। সরকারের উদ্দেশে তিনি বলেন, ‘নেতিবাচক বিষয় বাদ দিয়ে পজিটিভ রাজনীতি করুন। দেশের মানুষের জন্য সুষ্ঠু নির্বাচনের সিদ্ধান্ত নিন। আমরা বলি না বিএনপিকে ক্ষমতায় বসিয়ে দেয়া হোক। কিন্তু জনগণের ভোটাধিকার ফিরিয়ে দিন।’

সরকার মেগা প্রকল্প নিয়ে মেগা চুরি করছে অভিযোগ করে বিএনপির এই নেতা, ‘সরকার মুখে উন্নয়নের কথা বলে আর মেগা প্রজেক্ট গ্রহণ করে। এর  উদ্দেশ্য হলো মেগা চুরি। হাজার কোটি টাকার প্রজেক্ট করবে আর হাজার কোটি টাকা সরিয়ে নেবে। এই যে উড়াল সেতু, কিছুদিন পর দেখবেন তা ভাঙতে শুরু করেছে। রাস্তাঘাটে চলাফেরা করা যায় না, এত খারাপ অবস্থা।’

মির্জা ফখরুল নিত্যপণ্যের মূল্যবৃদ্ধির প্রসঙ্গও তুলে ধরেন। বাজারে এমন কোনো সবজি নেই, যা মানুষের ক্রয়ক্ষমতার ভেতরে আছে। তিনি সরকারের উদ্দেশে বলেন, ‘গ্যাস, পানি, বিদ্যুতের দাম বাড়াচ্ছেন। জনগণের পকেট খালি করছেন আর নিজেদের পকেট ভরছেন। ইতিহাস বলে মানুষ দীর্ঘদিন এসব সহ্য করবে না। তখন কামান দিয়ে কিছু হবে না।’

মহানগর দক্ষিণ বিএনপির সভাপতি হাবিব উন নবী খান সোহেলের সভাপতিত্বে সভায় আরো বক্তব্য দেন বিএনপির চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা আবদুস সালাম, বিএনপির স্বেচ্ছাসেবক বিষয়ক সম্পাদক মীর সরাফত আলী সপু, ঢাকা মহানগর বিএনপির সাধারণ সম্পাদক কাজী আবুল বাশার, সহ-সভাপতি ইউনুস মৃধা, সাংগঠনিক সম্পাদক সাইফুল ইসলাম পটু, রফিকুল ইসলাম রাসেল, তানভীর আহমেদ রবিন, শ্রমিক দলের সভাপতি আনোয়ার হোসাইন, স্বেচ্ছাসেবক দলের সভাপতি শফিউল বারী বাবু, সাধারণ সম্পাদক আবদুল কাদির ভুঁইয়া জুয়েল, যুবদলের সিনিয়র সহ-সভাপতি মোরতুল করিম বাদরু, ছাত্রদলের সাধারণ সম্পাদক আকরামুল হাসান মিন্টু প্রমুখ।

 

জয় পরাজয় আরো খবর

Comments are closed.

adv
সর্বশেষ সংবাদ
সাক্ষাতকার
adv
সব জেলার খবর
মুক্তমত
আর্কাইভ
October 2017
M T W T F S S
 1
2345678
9101112131415
16171819202122
23242526272829
3031  


বিজ্ঞাপন দিন

adv

মিডিয়া