adv
৪ঠা মার্চ, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ | ১৯শে ফাল্গুন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

ত্রিশালের মতো হামলার পরিকল্পনা জেএমবির

image-13931নিজস্ব প্রতিবেদক : ময়মনসিংহের ত্রিশালে প্রিজন ভ্যানে হামলা করে ফাঁসির আসামি জঙ্গি নেতাকে যেভাবে ছিনিয়ে নেয়া হয়েছিল, একই ভাবে আরেকটি হামলার পরিকল্পনা হয়েছিল। পুলিশের হাতে আটক জেএমবির সন্দেহভাজন পাঁচ সদস্য পুলিশকে এ কথা জানিয়েছে।  

২৮ ডিসেম্বর বুধবার দুপুরে ঢাকা মহানগর পুলিশের মিডিয়া সেন্টারে এক সংবাদ সম্মেলনে এ কথা জানান ডিএমপির জঙ্গিবিরোধী বিশেষ শাখা কাউন্টার টেরোরিজম অ্যান্ড ট্রান্স ন্যাশনাল ইউনিটের অতিরিক্ত কমিশনার মনিরুল ইসলাম।

মঙ্গলবার সন্ধ্যায় রাজধানীর দারুসসালাম এলাকা থেকে জেএমবির সন্দেহভাজন পাঁচ সদস্য রিয়াজ ওরফে ইঞ্জিনিয়ার ওরফে রাকিব, আবু বিন সাঈম ওরফে বাপ্পি ওরফে অপু, কাজী আবদুল্লাহ আল ওসমান ওরফে আহসান, সোহাগ ওরফে চেয়ারম্যান এবং মামুন ওরফে হিমেলকে আটক করে পুলিশ। তাদের কাছ থেকে তাদের কাছ থেকে ৩০ কেজি বিভিন্ন প্রকার তরল এবং পাউডার জাতীয় বিস্ফোরক পদার্থ, বোমা তৈরির সরঞ্জামসহ যন্ত্রপাতি উদ্ধার করা হয়।

এ বিষয়ে বিস্তারিত জানাতে সংবাদ সম্মেলনে মনিরুল বলেন, জেএমবি বিভিন্ন সময়ে ডাকাতি ও ছিনতাইয়ের মাধ্যমে টাকা অর্জন করে। এদের কাছ থেকে যে বিস্ফোরক পাওয়া গেছে, এগুলো দিয়েও তারা বোমা বানিয়ে ডাকাতি ও ছিনতাই করে দলের জন্য টাকা অর্জন করতে চেয়েছিল।

মনিরুল বলেন, জেএমবি নেতাদের বহনের সময় প্রিজন ভ্যানে হামলা করে তাদেরকে ছিনিয়ে নেয়ার পরিকল্পনাও ছিল আটক পাঁচ জঙ্গির। তিনি বলেন, জঙ্গিরা আবার সংগঠিত হওয়ার লক্ষ্য নিয়ে এগুচ্ছে। ‘সেই লক্ষ্য পূরণের জন্য তাদের আরো অর্থ, অস্ত্র ও জনবল প্রয়োজন। তারা চেষ্টা করছে দলকে পুনর্গঠন করতে। সে জন্য তারা চেয়েছিল তারা প্রিজন ভ্যান থেকে তাদের জেলে থাকা নেতাদের ছিনিয়ে নেবে।’

২০১৪ সালের ২৩ ফেব্রুয়ারি ময়মনসিংহের ত্রিশালে পুলিশের প্রিজন ভ্যানে হামলা চালিয়ে দ-প্রাপ্ত জেএমবি নেতা সালাউদ্দীন ওরফে সালেহীন, হাফেজ মাহমুদ ওরফে রাকিব হাসান এবং জাহিদুল ইসলাম ওরফে মিজান ওরফে বোমা মিজানকে ছিনিয়ে নেয় জঙ্গিরা। এদের মধ্যে দুই জন ছিলেন ফাঁসির আসামি।

মনিরুল বলেন, ‘কিছুদিন আগে তারা ভারতে তাদের কিছু সদস্য তাদের কিছু নেতা গ্রেপ্তার হয়েছিল। এই দলের অবস্থান অতটা শক্তিশালী না হলেও তারা এখন চেষ্টা করছে শক্তি অর্জনের জন্য। তাদের কিছু নেতাদের আগের কায়দায় প্রিজন ভ্যান স্টাইলে ছিনিয়ে নেওয়া যায় বলে তাদের পরিকল্পনা ছিল বলে তাদের কেউ কেউ স্বীকার করেছে।’

মনিরুল জানান, যে পাঁচ জনকে আটক করা হয়েছে তাদের নেতা রিয়াজ ওরফে ইঞ্জিনিয়ার ওরফে রাকিব। তিনি কিছুদিন আগে ভারতে গিয়েছিল। সেখানে সালাহউদ্দিন ওরফে সালেহীনের সঙ্গে পরামর্শ করে দেশে এসে তৎপরতা শুরু করেছিল।

 

জয় পরাজয় আরো খবর

Comments are closed.

adv
সর্বশেষ সংবাদ
সাক্ষাতকার
adv
সব জেলার খবর
মুক্তমত
আর্কাইভ
December 2016
M T W T F S S
 1234
567891011
12131415161718
19202122232425
262728293031  


বিজ্ঞাপন দিন

adv

মিডিয়া