adv
৯ই মার্চ, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ | ২৪শে ফাল্গুন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

মির্জা ফখরুল বললেন-পাকিস্তানি সেনাদের মতো এখনো আগুন দেয়া হচ্ছে

indexনিজস্ব প্রতিবেদক : মুক্তিযুদ্ধের সময় পাকিস্তানি সেনাদের মতোই এখন মানুষের বাড়িঘরে আগুন দেয়া হচ্ছে বলে দাবি করেছেন বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। গাইবান্ধার গোবিন্দগঞ্জে সাঁওতালদের উচ্ছেদের কথা তুলে ধরে তিনি বলেন, ‘পাকিস্তানি সেনারা যেভাবে হিন্দুদের বাড়িঘরে আগুন দিয়েছিল, শেখ হাসিনার সরকারের আমলে নিরীহ সাঁওতালদের বাড়িঘরে পুলিশ আগুন দিচ্ছে।’

১৫ ডিসেম্বর বৃহস্পতিবার বিকালে রাজধানীতে বিএনপির এক আলোচনায় ফখরুল এই মন্তব্য করেন। মহান বিজয় দিবস উপলক্ষে এই আলোচনার আয়োজন করে বিএনপি।

গোবিন্দগঞ্জে রংপুর চিনিকলের জমিকে পূর্বপুরুষদের দাবি করে তাতে আশ্রয় নিয়েছিল কয়েকশ সাঁওতাল পরিবার। গত ৬ নভেম্বর তাদেরকে উচ্ছেদ করে পুলিশ। এ সময় তাদের বাড়িঘরে আগুন দেয়া হয়। সম্প্রতি প্রকাশ হওয়া এক ভিডিওতে দেখা যায়, একটি বাড়িতে আগুন দিচ্ছেন এক পুলিশ সদস্য। ঘটনাটি বিচারবিভাগীয় তদন্তের নির্দেশ দিয়েছে হাইকোর্ট।

ফখরুল বলেন, ‘যারা দেশের স্বাধীনতার চেতনার কথা বলছে, আজ তারাই মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাস বিকৃত করছে। তিনি বলেন, স্বাধীনতার ৪৫ বছর পেরিয়ে গেলেও এখনো আমরা মুক্তিযুদ্ধের সঠিক ইতিহাস জানি না। যারা মুক্তিযুদ্ধ ছাড়া কোনো কথাই বলতে চান না, তারাই গোটা জাতিকে বিকৃত ইতিহাস জানাচ্ছে।’

প্রধান অতিথির বক্তব্যে বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য খন্দকার মোশাররফ হোসেন বলেন, ‘সরকার মুক্তিযুদ্ধের চেতনার কথা বললেও আজ তারাই এই চেতনাকে বিশ্বাস করে না। মুক্তিযুদ্ধের চেতনা হচ্ছে গণতন্ত্র। আর সেই গণতন্ত্রকে আওয়ামী লীগ বাক্সের মধ্যে তালাবদ্ধ করে রেখেছে।’

মোশাররফ হোসেন বলেন, ‘দেশে মানুষের ভোটের অধিকার নেই, কথা বলার অধিকার নেই। সামনে মানুষের ভোট দেয়ার একটা সুযোগ আছে। গণতান্ত্রিক অধিকার ফিরিয়ে দিতে সরকার ভোটারদের সহযোগিতা করবে আশা করছি।’

বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য মওদুদ আহমেদ বলেন, এখন দেশে রাজনীতি, গণতন্ত্র কিছুই নেই। আছে শুধু দলনীতি। আওয়ামী লীগের রাজনীতি ছাড়া বর্তমানে দেশে অন্য কোনো রাজনীতি নেই। তিনি বলেন, ‘আওয়ামী লীগ স্বাধীনতার চেতনার কথা বললেও তারা নিজেরাই সেই চেতনার কথা বিশ্বাস করে না। বিশ্বাস করলে সব দলকে স্বাধীনভাবে রাজনীতি করতে দিত।’

সরকারের সমালোচনা করে মওদুদ আহমেদ বলেন, ‘আওয়ামী লীগ সরকার শুধু তাদের সাফল্যের কথা বলে। কিন্তু ব্যর্থতার কথা বলে না। তারা কখনো তাদের অন্যায়ের কথা স্বীকার করে না।’

বিএনপির প্রতিষ্ঠাতাকে স্মরণ করে মওদুদ আহমেদ বলেন, জিয়াউর রহমানই প্রথম স্বাধীনতার ঘোষণা দিয়েছিলেন। তার ডাকেই জনগণের মধ্যে যুদ্ধে অংশগ্রহণের আগ্রহ জন্মেছিল। জিয়াউর রহমান দেশের গণতন্ত্রকে ফিরিয়ে দিয়েছিলেন, মানুষের অধিকার ফিরিয়ে দিয়েছিলেন, দেশে কথা বলার অধিকার, সংবাদপত্র প্রকাশের স্বাধীনতা দিয়েছিলেন। তার রাজনীতি ছিল উদার মনের।

আলোচনা সভায় আরও উপস্থিত ছিলেন, কল্যাণ পার্টির সভাপতি সৈয়দ মুহম্মদ ইবরাহিম, জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক উপাচার্য খন্দকার মোস্তাহিদুর রহমান, সাংবাদিক আব্দুল হাই সিকদার প্রমুখ।

জয় পরাজয় আরো খবর

Comments are closed.

adv
সর্বশেষ সংবাদ
সাক্ষাতকার
adv
সব জেলার খবর
মুক্তমত
আর্কাইভ
December 2016
M T W T F S S
 1234
567891011
12131415161718
19202122232425
262728293031  


বিজ্ঞাপন দিন

adv

মিডিয়া