adv
২৫শে জুলাই, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ | ১০ই শ্রাবণ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

রাবিতে উত্যক্তের জেরে ছাত্রলীগের দুই গ্রুপের মারামারি

1475475946ডেস্ক রিপাের্ট : রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে (রাবি) ছাত্রীকে উত্যক্তের জের ধরে ছাত্রলীগের দুই গ্রুপের মধ্যে মারামারির ঘটনা ঘটেছে।
 
২ অক্টােবর রবিবার রাত সাড়ে নয়টার দিকে বিশ্ববিদ্যালয়ের নবাব আব্দুল লতিফ হলের সামনে এ ঘটনা ঘটে। এ সময় ছাত্রলীগের নেতা-কর্মীরা লোহার রড-লাঠিসোঁটা নিয়ে এক পক্ষ অন্য পক্ষের উপর হামলা চালায়। পরে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর ও পুলিশ প্রশাসন এসে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।
 
সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে, রবিবার বিকেলে ইসলামের ইতিহাস ও সংস্কৃতি বিভাগের মাস্টার্সের শিক্ষার্থী নাজমুস সাকিব ও আলমসহ ৬/৭ জন প্যারিস রোড দিয়ে হাটছিলেন। এ সময় ইংরেজী বিভাগের তৃতীয় বর্ষের এক ছাত্রীকে তারা উত্যক্ত করে। এর কিছুক্ষণ পরে মেয়েটি তার বন্ধু ফলিত রসায়ন বিভাগের দ্বিতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী আবু আব্দুল্লাহ আহমেদ সালেহ তপুসহ কয়েকজনকে ডেকে তাদের বিরুদ্ধে উত্যক্তের অভিযোগ করে। এ সময় উভয় পক্ষের মধ্যে উত্তপ্ত বাক্য বিনিময় হয়।  পরে উভয় পক্ষের মধ্যে মারামারির ঘটনা ঘটে। পুলিশ, বিশ্ববিদ্যালায়ের প্রক্টর, ছাত্র উপদেষ্টা ও ছাত্রলীগের সভাপতি-সম্পাদকের সহয়তায় পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আসে।
 
ওই ছাত্রীর অভিযোগ, ‘সন্ধা সাড়ে সাতটার দিকে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্যারিস রোডে সাইকেল চালাচ্ছিলেন তিনি। এ সময় সাকিবসহ কয়েকজন শিক্ষার্থী তাকে উদ্দেশ্য করে কটুক্তি করে। সাইকেল থামিয়ে তিনি তাদের দিকে তাকানোর সঙ্গে সঙ্গেই তারা ছুটে আসে এবং বলতে থাকে, ‘আপু হেল্প লাগবে?’ এ সময়  তারা আপত্তিকর বেশকিছু বাজে শব্দ করছিল। এছাড়াও সাইকেলের হ্যান্ডেল ঠিক করে দেবার অজুহাতে তারা তাকে শারীরিকভাবে লাঞ্চিত করে।’
 
এদিকে সাকিব অভিযোগ অস্বীকার করে বলেন, ‘আমরা কয়েকজন বন্ধু প্যারিস রোড দিয়ে হাটছিলাম এবং ছবি তুলছিলাম। এ সময় ওই মেয়েটি আমাদের মাঝখানে পড়ে যায়। মেয়েটির সাইকেলে একটু সমস্যা মনে হওয়ায় তার সাহায্য লাগবে কিনা জিজ্ঞেস করি।  এ সময় একে অপরের সঙ্গে আমাদের পরিচয়ও ঘটে। কিন্তু কিছুদূর সামনে এগোতেই মেয়েটি তার কয়েকজন বন্ধুকে ডাকে এবং আমরা নাকি তাকে শারিরীকভাবে হেনস্তা করেছি সেই অভিযোগ করেন।’
 
বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক খালিদ হাসান বিপ্লব বলেন, ‘লতিফ হলে একটি বিষয় নিয়ে সমস্যা হয়েছিল। পরে আমরা গিয়ে মীমাংসা করে দিয়েছি।’
 
বর্তমান পরিস্থিতি শান্ত আছে উল্লেখ করে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর অধ্যাপক মুজিবুল হক আজাদ খান বলেন, ‘পরিস্থিতি এখন নিয়ন্ত্রণে আছে। দুই পক্ষের সঙ্গে আলোচনা করে বিষয়টি সমাধান করা হবে।’

জয় পরাজয় আরো খবর

adv
সর্বশেষ সংবাদ
সাক্ষাতকার
adv
সব জেলার খবর
মুক্তমত
আর্কাইভ
October 2016
M T W T F S S
 12
3456789
10111213141516
17181920212223
24252627282930
31  


বিজ্ঞাপন দিন

adv

মিডিয়া