adv
১৭ই এপ্রিল, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ | ৪ঠা বৈশাখ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

১০০ টাকার জন্য লাশ হলো কলেজ ছাত্র

nowaডেস্ক রিপোর্টঃ ১০০ টাকার জন্য লাশ হলো কলেজ ছাত্র রুবেল। রুবেল ও তার পিতা আব্দুল্যাহ মিন্টুর ছোট ফেনী নদী পার হওয়ার জন্য খেয়াঘাটে যান। নদী পার হতে ভাড়া ১০ টাকা হলেও মাঝি আব্দুল হাদি ৫০০ টাকা দাবী করেন। ৫০০ টাকা ছাড়া তাকে নদী পার করিয়ে দিতে অস্বিকার করেন মাঝি। দরকষাকষির এক পর্যায়ে রুবেল ৪০০ টাকা দিতে রাজি হলেও মাঝি তাকে নদী পার করে দিতে রাজি হয়নি।

একপর্যায়ে রুবেল সাতার কেটে নদী পার হওয়ার প্রস্তুতি নিলে তার পিতাও তার সাথে যাওয়ার সিদ্ধান্ত নেন। পিতা ও পুত্র সাতার কেটে নদী পার হওয়ার সময় পিতা তীরে উঠতে সক্ষম হলেও পুত্র স্রোতের টানে নিখোঁজ হন। নিখোঁজ পর থেকে মাঝি আব্দুল হাদি পালিয়ে গিয়েছে।

গত শুক্রবার সন্ধ্যায় ফেনী সোনাগাজী উপজেলার চরছান্দিয়া ইউনিয়নের সওদাগরহাট খেয়া ঘাট সংলগ্ন ছোট ফেনী নদীতে এঘটনা ঘটে। নিখোঁজ কলেজ ছাত্র তারেক হাসান রুবেল (২০) বসুরহাট মুজিব কলেজের দ্বাদশ শ্রেণীর ছাত্র।

এদিকে কলেজ ছাত্র নিখোঁজ হবার ২৮ ঘন্টা পর শনিবার রাত সাড়ে ১১ টার দিকে লাশ উদ্ধার করেছে।

নিখোঁজ ঘটনাটি জানাজানি হলে স্থানীয় এলাকাবাসী ও কোম্পানিগঞ্জ থানার পুলিশ রাতভর তাকে উদ্ধারের চেষ্টা চালিয় ব্যর্থ হয়। শনিবার সকাল থেকে প্রশাসনের পক্ষ থেকে ছোট ফেনী নদীতে ডুবুরি নামিয়ে ও তাকে উদ্ধারকরা যায়নি। পরে এলাকাবাসীরা নিজ উদ্যোগে রাত সাড়ে ১১টার দিকে ফেনী ছোট নদী থেকে কোম্পানীগঞ্জ মুছাপুর রেগুলেটর এলাকা থেকে কলেজ ছাত্র রুবেলের লাশ উদ্ধার করা হয়। রাতে দাফন সম্পর্ন্ন করা হয়ছে। রুবেল ফেনী সোনাগাজী উপজেলার চরছান্দিয়া ইউনিয়নের পুরাতন সওদাগরহাট এলাকার দরিদ্র কৃষক আব্দুল্যাহ মিন্টুর ছেলে। নিহতের ঘটনায় তার পরিবার, সহপাঠী ও এলাকাবাসীর মাঝে শোকের ছায় নেমে এসেছে।

জয় পরাজয় আরো খবর

Comments are closed.

adv
সর্বশেষ সংবাদ
সাক্ষাতকার
adv
সব জেলার খবর
মুক্তমত
আর্কাইভ


বিজ্ঞাপন দিন

adv

মিডিয়া