adv
২৬শে জুলাই, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ | ১১ই শ্রাবণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

এইচ টি ইমামের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়ার দাবি

নিজস্ব প্রতিবেদক : ‘বিতর্কিত’ মন্তব্যের জের ধরে প্রধানমন্ত্রীর রাজনৈতিক উপদেষ্টা এইচটি ইমামের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়ার দাবি জানিয়েছেন মন্ত্রিসভার কয়েকজন সদস্য। সোমবার সচিবালয়ে মন্ত্রিসভার নিয়মিত বৈঠকে অনির্ধারিত আলোচনায় তারা এ দাবি তুলেন। তবে এ দাবির পরিপ্রেক্ষিতে প্রধানমন্ত্রী সরাসরি কিছু বলেননি।
বৈঠক সূত্র জানায়,  অনির্ধারিত আলোচনায় শিল্পমন্ত্রী আমির হোসেন আমু,  বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদ,  সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদেরসহ  কয়েকজন সিনিয়র মন্ত্রী এইচটি ইমামের প্রসঙ্গ তুলে তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়ার দাবি জানান। এ ধরনের বক্তব্য দল ও সরকারকে বেকায়দায় ফেলে বলেও মন্তব্য করেন তারা।
তবে প্রধানমন্ত্রী সিনিয়র মন্ত্রীদের বক্তব্যের সরাসরি কোনো প্রতিক্রিয়া জানাননি। তিনি মন্ত্রীদের উদ্দেশে বলেছেন, সরকার বিব্রত হয় এ ধরনের কথা বলা থেকে আপনারা বিরত থাকবেন। এসময় প্রধানমন্ত্রী জানান, তার সঙ্গে এ নিয়ে এইচ টি ইমামের কোনো কথা হয়নি। তার ফোন রিসিভ করেননি বলেও জানান প্রধানমন্ত্রী।
উল্লেখ্য, গত বুধবার ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র-শিক্ষক কেন্দ্রে (টিএসসি) ছাত্রলীগ আয়োজিত এক আলোচনা সভায় এইচ টি ইমাম ৫ জানুয়ারির নির্বাচন সম্পর্কে বলেন, “নির্বাচনের সময় আমি তো প্রত্যেকটি উপজেলায় কথা বলেছি, সব জায়গায় আমাদের যারা রিক্রুটেড, তাদের সঙ্গে কথা বলে, তাদেরকে দিয়ে মোবাইল কোর্ট করিয়ে আমরা নির্বাচন করেছি। তারা আমাদের পাশে দাঁড়িয়েছে, বুক পেতে দিয়েছে।  ছাত্রলীগের নেতা-কর্মীদের উদ্দেশে তিনি বলেন, তোমাদের লিখিত পরীক্ষায় ভালো করতে হবে। তার পরে আমরা দেখব। তার এই বক্তব্যে দল ও বাইরে ব্যাপক প্রতিক্রিয়ার সৃষ্টি হয়। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাও তার ওপর ক্ষুব্ধ হন বলে সংবাদ প্রকাশিত হয়। সোমবার এক সংবাদ সম্মেলনে এইচ টি ইমাম দাবি করেন, তার বক্তব্য গণমাধ্যমে খণ্ডিত আকারে, বিকৃতভাবে এসেছে।

 

জয় পরাজয় আরো খবর

Comments are closed.

adv
সর্বশেষ সংবাদ
সাক্ষাতকার
adv
সব জেলার খবর
মুক্তমত
আর্কাইভ


বিজ্ঞাপন দিন

adv

মিডিয়া