adv
২৩শে মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ | ৯ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

কানাডায় দুই শিং ওয়ালা শয়তান!

devil220140912064418আন্তর্জাতিক ডেস্ক : মাথায় দুটি বড় শিং। খাড়া দুটি কান। হলুদ চোখের মনি দুটি কালো। লাল রঙের শরীর। পুরোটাই বিবস্ত্র। পেছনে সজাগ লেজ। ডান হাত চলাচলকারী লোকজনের উদ্দেশ্যে ওপরের দিকে তোলা, যেন তাদেরকে অভিবাদন জানাচ্ছে। বাম হাত সামনের দিকে কোমরের ডান অংশে স্থাপিত। কানাডার পূর্ব ভ্যানকুভারে গত মঙ্গলবার সকালে হঠাৎত করেই আবির্ভূত হলো শয়তান!
না, ঠিক শয়তান নয়। তবে শয়তানের একটি ভাস্কর্য। অনেকে একে বলছেন, ‘শিংওয়ালা শয়তান’; অনেকে আবার আখ্যায়িত করছেন ‘শিশ্ন শয়তান’ হিসেবে।
ক্লার্ক ড্রাইভ স্কাইট্রেন স্টেশনের সামনে ¯’ানীয় একটি পার্কে ৯ ফুট লম্বা রহস্যময় এ ভাস্কর্য কোথা থেকে এলো কেউ বলতে পারছে না।
লোকজনের নজরে আসার পর থেকেই ভাস্কর্যটিকে ঘিরে ব্যাপক আলোচনার সৃষ্টি হয়। আবির্ভাবের কয়েক ঘণ্টার মধ্যেই মঙ্গলবার দুপুরে ‘আপত্তিকর’ মনে করে ভাস্কর্যটি সরিয়ে ফেলেছে ভ্যানকুভার শহর কর্তৃপক্ষ।
ভ্যানকুভার শহরের মুখপাত্র সারা কুপার বলেন, ‘শহরের সৌন্দর্যবর্ধনের জন্য কর্তৃপক্ষের নেওয়া পরিকল্পনার কোন অংশে ভাস্কর্যটি ছিল না। এটি কোথা থেকে ওই পার্কে এলো তা আমরা এখনো নিশ্চিত হতে পারিনি। তবে ভাস্কর্যটি সরিয়ে ফেলা হয়েছে।
ভ্যানকুভার শহর কর্তৃপক্ষ এক টুইটার বার্তায় বলেছে, ভাস্কর্যটি বর্তমানে আমাদের কাছেই আছে। এটি নিয়ে যাওয়ার জন্য মালিক এখনো আসেননি।
এদিকে, শয়তানের ভাস্কর্যটি আগের স্থানে ফিরিয়ে আনার দাবিতে ড্যারিল গ্রিয়ার নামে ভ্যানকুভারের এক বাসিন্দা শহর কর্তৃপক্ষের কাছে আবেদন করেছেন। গ্রিয়ারের এই প্রচেষ্টার সঙ্গে সঙ্গতি প্রকাশ করে ইতিমধ্যে আবদনপত্রে দেড় হাজারেরও বেশি লোক স্বাক্ষর করেছেন।
অনেক বিত্তশালী লোক অবশ্য ভাস্কর্যটি ব্যক্তিগতভাবে অর্জনের অভিপ্রায় ব্যক্ত করেছেন। তবে ভ্যানকুভার কর্তৃপক্ষ স্পষ্ট জানিয়ে দিয়েছে, ‘তারা ভাস্কর্যটির মালিকের জন্য অপেক্ষা করছেন। যদি শেষ পর্যন্ত ভাস্কর্যটি সংগ্রহ করতে কেউ না আসে, তবে হট আর্ট ওয়েট সিটি গ্যালারি হবে এর শেষ ঠিকানা।

 

জয় পরাজয় আরো খবর

adv
সর্বশেষ সংবাদ
সাক্ষাতকার
adv
সব জেলার খবর
মুক্তমত
আর্কাইভ
September 2014
M T W T F S S
1234567
891011121314
15161718192021
22232425262728
2930  


বিজ্ঞাপন দিন

adv

মিডিয়া