adv
২৬শে জুলাই, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ | ১১ই শ্রাবণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

বন্দুকযুদ্ধে’ দুই ‘চরমপন্থি’ নিহত

ডেস্ক রিপোর্ট : ঝিনাইদহের হরিণাকুন্ডু উপজেলার হৃষখালী আমবাগান ও কোটচাঁদপুর উপজেলার দোড়া গ্রামের মাঠে পুলিশের সঙ্গে কথিত বন্দুকযুদ্ধে দুই চরমপন্থি নিহত হয়েছেন। পুলিশ তাদের চরমপন্থি বলে দাবি করলেও তাদের পরিচয় জানাতে পারেনি।
বন্দুকযুদ্ধে একজন এসআই ও তিন পুলিশ কনস্টেবল সামান্য আহত হয়েছেন বলেও দাবি পুলিশের। ঝিনাইদহ পুলিশ সুপার আলতাফ হোসেন জানান, শুক্রবার রাত  আড়াইটার দিকে হরিণাকুন্ডু থানার এসআই ফারুক হোসেনের নের্তৃত্বে  পুলিশের একটি দল টহল দিচ্ছিল। তারা হৃষখালী আমবাগান এলাকায় পৌঁছালে  চরমপন্থিরা পুলিশের উপর হাতবোমা নিক্ষেপ করে। পুলিশও পাল্টা গুলি চালায়। উভয় পক্ষের মধ্যে ১০/১২ মিনিট বন্দুকযুদ্ধ চলে। এরপর চরমপন্থিরা পালিয়ে যায়।
পরে পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে একজনের গুলিবিদ্ধ লাশ, একটি এলজি, দুই রাউন্ড গুলি ও ছয়টি হাতবোমা উদ্ধার করে। এ সময় কনস্টেবল শরিফুল ইসলাম ও শফিক আহমেদ আহত হন বলে জানিয়েছেন পুলিশ সুপার। 
এছাড়া কোটচাঁদপুর থানার ওসি ফজলুল রহমান জানান, উপজেলার দোড়া গ্রামের মাঠে একদল চরমপন্থি গোপন বেঠক করছে- এমন খবর পেয়ে রাত দেড়টার দিকে পুলিশ সেখানে অভিযান চালায়।
এ সময় চরমপন্থিরা পুলিশকে লক্ষ্য করে গুলি ছুড়ে। পুলিশও পাল্টা গুলি চালায়। ১৫ মিনিটের বন্দুকযুদ্ধ শেষে পুলিশ সেখান থেকে একজনকে গুলিবিদ্ধ অবস্থায় উদ্ধার করে কোটচাঁদপুর হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিতসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।
পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে একটি পাইপগান ও তিন রাউন্ড গুলি উদ্ধার করা হয়েছে। বন্দুকযুদ্ধে আহত দুই পুলিশ সদস্য হলেন- এসআই নাজমূল হাসান ও কনস্টেবল ফিরোজ আহমেদ। পুলিশ জানিয়েছে, তাদের প্রাথমিক চিকিতসা দেয়া হয়েছে। 

 

জয় পরাজয় আরো খবর

Comments are closed.

adv
সর্বশেষ সংবাদ
সাক্ষাতকার
adv
সব জেলার খবর
মুক্তমত
আর্কাইভ


বিজ্ঞাপন দিন

adv

মিডিয়া