২৯শে সেপ্টেম্বর, ২০১৯ ইং | ১৪ই আশ্বিন, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

adv

বিসিবির হাসি কেড়ে নিলেন লোকমান হোসেন

নিজস্ব প্রতিবেদক : বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের (বিসিবি) পরিচালক ও মোহামেডান স্পোর্টিং ক্লাবের ডাইরেক্টর ইনচার্জ লোকমান হোসেন ভূঁইয়া ক্যাসিনো কা-ে র‌্যাবের হাতে গ্রেফতার হওয়ার পর অস্বস্তিতে পড়েছে বিসিবির সকল কর্মকর্তা-কর্মচারীরা। কারো মুখে হাসি নেই, যেনো পিতপনত নিরাবতা বিরাজ করছে বোর্ডজুড়ে।
লোকমান বর্তমানে বোর্ডের ফ্যাসিলিটিজ ম্যানেজমেন্ট বিভাগের প্রধান। মূলত এ কারণেই বিসিবি এখন অস্বস্তিতে। সাত বছর আগেও ক্রিকেটের সঙ্গে তার কোনো সম্পর্ক ছিল না। মোহামেডান ক্লাবের মাধ্যমে ফুটবলের লোক হিসেবেই সবাই তাকে জানতো।

ক্রিকেট বোর্ডের সবাই যেনো কথা বলতে ভুলে গেছে। লোকমান ইস্যুতে তো একেবারেই নিরব সবাই। তবে কয়েকজন পরিচালক বললেন, লোকমান প্রথম ক্রিকেট বোর্ডে আসেন ২০১২ সালের অক্টোবরে। আগের কমিটির চার বছরের মেয়াদ শেষ হলে সে সময় বিসিবির একটি অন্তর্বতীকালীন কমিটি গঠন করে যুব ও ক্রীড়া মন্ত্রণালয়। ১৩ সদস্যের এই অন্তর্বতীকালীন কমিটির সভাপতি হন বিসিবির বর্তমান সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন। তিনি তার আগেই সরকার কর্তৃক মনোনীত হয়ে সভাপতির চেয়ারে বসেছিলেন। এই কমিটির একজন সদস্য হিসেবে যুক্ত হন লোকমান।

পরে ২০১৩ সালের অক্টোবরে যে ১৯ পরিচালক বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হন, তাদের মধ্যে তিনিও ছিলেন। লোকমান বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় বোর্ড পরিচালক হয়েছেন ২০১৭ সালের অক্টোবরে বিসিবির সবশেষ নির্বাচনেও।

মোহামেডান স্পোর্টিং ক্লাবের কক্ষ ক্যাসিনোর জন্য ভাড়া দেওয়ায় লোকমানকে গ্রেফতার দেখানো হচ্ছে বলে জানিয়েছে র‌্যাব। তার গ্রেফতার হওয়ার ঘটনায় বিব্রত বিসিবির আরেক পরিচালক আহমেদ সাজ্জাদুল আলম বলেছেন, নানা জায়গা থেকে তার (লোকমান) ব্যাপারে আমাদের কাছে জানতে চাইছে। কিছু কিছু ক্ষেত্রে বিব্রত হচ্ছি, অস্বস্তির মধ্যে পড়ে যাচ্ছি। তবে সরকারের এই অভিযানকে স্বাগত জানাই, অবশ্যই এটি প্রশংসনীয় উদ্যোগ।

তবে সাত বছর আগেও যার ক্রিকেটের সঙ্গে কোনো সম্পৃক্ততা ছিল না, সেই লোকমান কীভাবে বিসিবিতে এলেন, সেটি অবশ্য মনে পড়ছে না সাজ্জাদুল আলম ববির। তিনি বলেন, আগে তাকে সরাসরি ক্রিকেটে যুক্ত থাকতে দেখিনি। তবে মাঠে দেখেছি, হয়তো দর্শক হিসেবে এসেছেন। ক্রিকেট সংগঠক হিসেবে তার পরিচয় আমরা জানতাম না। বোর্ডের এই কমিটির আগের কমিটি থেকে তাকে দেখছি।

বিসিবির আরেক পরিচালক নাঈমুর রহমান দুর্জয় বলেছেন, অপরাধী প্রমাণিত হলে লোকমান সাহেবের শাস্তিও হবে। আমরা তাকে ভদ্রলোক হিসাবেই জানতাম।
কদিন আগেও যাকে বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসান পাপনের সঙ্গে বোর্ড পরিচালকদের হাস্যোজ্জ্বল মুখে দেখা গেছে, ক্যাসিনো-কা-ে গ্রেফতার হয়ে সেই লোকমান যেন হাসি কেড়ে নিয়েছেন বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের।

জয় পরাজয় আরো খবর

Comments are closed.

adv
সর্বশেষ সংবাদ
সাক্ষাতকার
adv
সব জেলার খবর
মুক্তমত
আর্কাইভ
সেপ্টেম্বর ২০১৯
সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
« আগষ্ট    
 
১০১১১২১৩১৪১৫
১৬১৭১৮১৯২০২১২২
২৩২৪২৫২৬২৭২৮২৯
৩০  


বিজ্ঞাপন দিন

adv

মিডিয়া